সংবাদ শিরোনাম
এবার দিল্লির ধরনা থেকে মহাজোটের বার্তা, মোদী হঠাও  » «   আমিরাতে সাধারণ ক্ষমায় বৈধ হলো ৫০ হাজার বাংলাদেশি  » «   মালয়েশিয়ায় পুলিশের গুলিতে দুই বাংলাদেশি নিহত  » «   অচল কানাডা: মাইনাস ৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার সতর্কতা  » «   তবু শেষ রক্ষা হলো  » «   রাজধানীর গুলশানে গারো তরুণীকে ধর্ষণ  » «   বাংলাদেশ ব্যাংকের পূর্বানুমতি ছাড়া মেয়াদোত্তীর্ণ বিল পরিশোধ নয়  » «   স্বামীকে হাসপাতালে নেওয়ার সময় দুর্ঘটনায় স্ত্রীর মৃত্যু  » «   সিরিয়ায় মার্কিন হামলায় নারী ও শিশুসহ নিহত ৫০  » «   ইজতেমার বয়ানে উসকানিমূলক বক্তব্য দেয়া যাবে না : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   জাবিতে ছাত্রলীগের দুপক্ষে সংঘর্ষ চলছে, প্রক্টরসহ আহত ৫  » «   সিলেট জেলা পুলিশের মাদক নির্মূলে অঙ্গীকার  » «   সিটি করপোরেশনের কাজ করে ১৩ বছরেও বিল পাননি ঠিকাদার  » «   যতনে বাঁধিও চুল, খোপায় বাঁধিও ফাল্গুনী ফুল  » «   সিলেটে দুই ড্রিংকিং ওয়াটারসহ তিন প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা  » «  

খুসখুসে কাশির সমাধান আছে চকোলেটের মাঝে!

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::ঘন ঘন তাপমাত্রার এই ওঠা-নামায় অসুস্থ হয়ে পড়ছেন অনেকেই। ঠাণ্ডা লেগে জ্বর, সর্দি-কাশির সমস্যায় জেরবার অনেকেই। খুসখুসে কাশিতে অনেকেরই জীবন একেবারে অতিষ্ট হয়ে ওঠে। এই সব সাধারণ অথচ কষ্টকর মৌসুমী সমস্যায় আমরা প্রায় সকলেই অ্যান্টিবায়টিক বা কাফ সিরাপের দ্বারস্থ হই। কিন্তু অ্যান্টিবায়টিকের প্রভাবে মুখে আর কোনও স্বাদ থাকে না, শরীরও দুর্বল হয়ে পড়ে। আর কাফ সিরাপে খুসখুসে কাশি সারতেও বেশ সময় লেগে যায়। তাই আপনি যদি চকোলেট ভালোবাসেন আর বাড়িতে চকোলেট থাকে, তাহলে অ্যান্টিবায়টিক বা কাফ সিরাপের আর প্রয়োজন হবে না। সর্দি-কাশির সমস্যায় চকোলেট খেলেই কাজ দেবে। সেরে যাবে সমস্যা!

অবিশ্বাস্য মনে হলেও এমনটাই দাবি, একদল ব্রিটিশ গবেষকদের। ইংল্যান্ডের ‘ইউনিভার্সিটি অব হাল’-এর হৃদরোগ ও শ্বাসযন্ত্র বিভাগের প্রধান অ্যালিন মরিস জানান, সর্দি-কাশির সমস্যা নিরাময়ে ওষুধের অন্যতম উপাদান কোকোয়া। তার মতে, বাজারে উপলব্ধ ডার্ক চকোলেটে কোকোয়ার পর্যাপ্ত উপস্থিতি সর্দি-কাশির সমস্যা নিরাময়ের ক্ষেত্রে সহজ সমাধান হতে পারে।

অধ্যাপক মরিসের মতে, চকোলেটে থাকা কোকোয়ার মধ্যে থিওব্রমিন নামে এক বিশেষ ধরনের উপাদান থাকে, যা খুসখুসে কাশির জন্য দায়ি পাতলা শ্লেষ্মাকে ঘন আঠালো আস্তরণে পরিনত করে। ফলে সমস্যা মিটে যায়। এ ছাড়াও, চকোলেট গলার ভিতরে একটা আঠালো আস্তরণ তৈরি করে। ফলে আক্রান্ত স্নায়ুপ্রান্তগুলি ঢাকা পড়ে গিয়ে গলা খুসখুসের সমস্যা বন্ধ হয়ে যায়।

লন্ডনের ইম্পেরিয়াল কলেজের বিজ্ঞানীদের মতে, সর্দি-কাশির ওষুধে ব্যবহৃত কোডিনের চেয়ে চকোলেটে থাকা কোকোয়ায় সমস্যার দ্রুত সমাধান হয়। তাদের মতে, সাধারণ ওষুর চেয়ে কোকোয়া বেশি আঠালো হয়। তাই এটি গলার মধ্য তুলনামূলক পুরু আস্তরণ তৈরি করতে সক্ষম হয়। ফলে ৩৬ থেকে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে সর্দি-কাশির সমস্যা অনেকটাই সেরে যাবে!

সূত্র: জিএন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.