সংবাদ শিরোনাম
নগরীর পাঠানটুলায় সৎ মাকে কুপিয়ে জখম-উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় স্থানান্তর  » «   যুক্তরাষ্ট্রে মৃত মানব শরীর কম্পোস্ট করে তৈরি হবে জৈব সার  » «   বিমান বাহিনীর প্রধান হিসেবে নারীকে মনোনয়ন দিলেন ট্রাম্প  » «   ফল ঘোষণার আগেই পাঁচ বছরের পরিকল্পনা স্থির মোদির  » «   রাজধানীতে কোনও ছিনতাইকারী নেই : আছাদুজ্জামান মিয়া  » «   বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ ॥ ধর্ষক গ্রেফতার  » «   সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের ইফতার মাহফিল সম্পন্ন  » «   বদলে গেল কিলোগ্রাম মাপার প্রতীক  » «   মার্কিন সুপারস্ট্রার সেলেনার বিয়ে এই ‘বুড়ো’র সঙ্গে!  » «   বশেমুরবিপ্রবি’র ৯ শিক্ষার্থীকে আড়াই লাখ টাকা অনুদান  » «   নতুন টাকার নোট বিনিময় কার্যক্রম শুরু  » «   বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের বিপজ্জনক ক্রিকেটার জস বাটলার  » «   কানাইঘাটে পাওনা টাকার জের ধরে ধারালো চাকুর আঘাতে গুরুতর আহত মাইক্রোচালকের মৃত্যু  » «   ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ফেলে যাওয়া সেই নবজাতককে নিলেন পুলিশ দম্পতি  » «   সিলেট নগরীতে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অভিযান-জরিমানা  » «  

বয়ফ্রেন্ডকে নিজের নাভি উপহার

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::শোনা যায়, শিল্পী ভিনসেন্ট ভ্যান গগ তাঁর একটি কান কেটে প্রণয়িণীকে উপহার দিয়েছিলেন। সে কথা সত্য, নাকি কিংবদন্তি, তা নির্ণীত নয়। কিন্তু বাস্তবে এমন ঘটনা ঘটেছে সম্প্রতি, যা ভয়াবহতায় টেক্কা দিতে পারে এই ‘কাহিনি’-কে।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ‘মিরর’-এ প্রকাশিত এক প্রতিবেদন থেকে জানা গিয়েছে, সম্প্রতি এই যুবতী নিজের নাভি উপড়ে এনে উপহার দিলেন তাঁর প্রেমিককে।

মেক্সিকোর জালিস্কোর বাসিন্দা ২৩ বছর বয়সি পলিনা ক্যাসিয়াস ল্যান্ডেরোসের পরিচিতি ‘বডি মডিফিকেশন ফ্যানাটিক’ হিসেবে। অর্থাৎ তিনি নিয়মিত দেহের বিভিন্ন অঙ্গে বদল আনেন। তাঁর জিভ দ্বিধাবিভক্ত এবং তিনি ‘ব্যাক করসেট’ নামের একটি অস্ত্রোপচার করান, যাতে মেরুদণ্ডের দু’পাশে ছিদ্র করা হয়।

২০১৫ সালে পলিনা স্থির করেন, তাঁর তৎকালীন বয়ফ্রেন্ড ড্যানিয়েল র‌্যামিরেজকে তাঁর নাভিটি উপড়ে উপহার দেবেন। মনস্থির করেন পলিনা।

পেশাদারদের দিয়েই অস্ত্রোপচার করে উপড়ে আনা হয় তাঁর নাভি। এবং তিনি তা ‘উপহার’ হিসেবে পাঠান ড্যানিয়েলকে।

তার পরে কেটে গিয়েছে বছর তিনেক। সম্প্রতি এই কাহিনিকে সংবাদমাধ্যমে ব্যক্ত করেছেন পলিনা। তিন বছরে তাঁর পরিবারের সঙ্গে এই কারণে তাঁর দূরত্ব বেড়েছে, তাঁকে ভুল বুঝেছেন তাঁর ঘনিষ্ঠরা। কিন্তু তিনি এই সব কিছুকেই সহ্য করেছেন এক দর্শনের কথা ভেবে। তিনি নিজেকে ‘ডিহিউম্যানাইড’ করতে চান। অর্থাৎ, মানুষের জন্মগত চিহ্নগুলি থেকে নিজের দেহকে মুক্ত করে অর্জন করতে চান ‘নিজস্ব’ অবয়ব।

নাভি উপড়ে আনার পরে তিনি দীর্ঘকাল অসুস্থ ছিলেন। ক্রমে শুকিয়ে আসে ক্ষত। কিন্তু পুরোপুরি সারেনি তা। ড্যানিয়েলের সঙ্গে উদ্দাম প্রেমও ফিকে হয়েছে। তবে আজও তাঁরা ভাল বন্ধু।

ইদানীং পরিবারের সঙ্গে সম্পর্কেরও খানিকটা উন্নতি হয়েছে পলিনার। তবে তাঁর দর্শন থেকে তিনি আজও পিছিয়ে আসেননি, জানিয়েছেন পলিনা।

সূত্রঃ এবেলা

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.