সংবাদ শিরোনাম
ভোলাগঞ্জের খাগাইল নামক স্থানে ট্রাক-অটোরিকশা সংঘর্ষে নিহত ২  » «   নিজের মামলায় ফেসে কারাগারে শামীমা স্বাদীন  » «   টাকার ভাগ-বাঁটোয়ারা নিয়ে রাব্বানীর ফোনালাপ ফাঁস  » «   পুলিশকে জনবান্ধব হিসেবে গড়ে তুলতে হবে: প্রধানমন্ত্রী  » «   দ্রুত উইকেট পতনে কঠিন চাপে বাংলাদেশ  » «   ছাত্রলীগকে কলঙ্কমুক্ত করতে কাজ করবে জয়-লেখক  » «   মন্ত্রিত্ব গেলে আবার সাংবাদিকতায় আসব: ওবায়দুল কাদের  » «   ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জয়-সা. সম্পাদক লেখক  » «   ছাত্রলীগ থেকে সরিয়ে দেয়া হলো শোভন-রাব্বানীকে  » «   ছাত্রদলের নেতারা নিজেরাই মামলা করে সম্মেলন বন্ধ করেছে  » «   শোভন-রাব্বানীর ভাগ্য নির্ধারণ আজ  » «   সংবাদপত্রকর্মীদের জন্য নবম ওয়েজবোর্ড ঘোষণা  » «   আদালতে ফয়সালা করেই ছাত্রদলের কাউন্সিল : দুদু  » «   জনগণের আস্থা, বিশ্বাস ধরে রাখার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর  » «   স্বামীকে তালাক দিয়ে প্রেমিকের বাড়িতে তরুণীর অনশন  » «  

উন্নয়নশীল দেশের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে বাংলাদেশ

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::গেল বছর জাতিসংঘ থেকে উন্নয়নশীল দেশের প্রাথমিক স্বীকৃতি পাওয়ার পর এবার দ্রুততম উন্নয়নশীল দেশের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে উঠে এল বাংলাদেশ। মঙ্গলবার (৯ এপ্রিল) আইএমএফ এই তালিকা প্রকাশ করেছে। ব্যবসায়ী-উদ্যোক্তারা বলছেন, এসব অর্জনকে সুসংহত করতে ব্যাংকসহ আর্থিক খাতকে চাঙ্গা করে তুলতে হবে। আর অর্থনীতিবিদের পরামর্শ, নতুন নতুন রপ্তানি পণ্য ও বাজার ধরে অংশগ্রহণ বাড়াতে হবে বিশ্ব অর্থনীতিতে।
২০১৫ সালের জুলাই মাসে নিম্ন মধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে উঠে আসা বাংলাদেশকে, গেল বছর মার্চে উন্নয়নশীল দেশের প্রাথমিক স্বীকৃতি দেয় জাতিসংঘ। আর এবার আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল- আইএমএফ-এর প্রতিবেদনে ৭ দশমিক ৩ শতাংশ জিডিপি প্রবৃদ্ধি নিয়ে দ্রুততম উন্নয়নশীল দেশের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে বাংলাদেশ। তালিকায় তৃতীয় স্থানে আছে ভারত আর ৭ দশমিক ৮ শতাংশ প্রবৃদ্ধি নিয়ে তালিকার শীর্ষে রয়েছে রুয়ান্ডা।
মাথাপিছু আয়, মানব সম্পদ ও অর্থনৈতিক ঝুঁকি সূচকে এগিয়ে চলা বাংলাদেশের এসব উন্নয়নকে আরও গতিশীল করার জন্য নতুন বিনিয়োগ টানতে কাজ করার আহ্বান ব্যবসায়ীদের।
ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ফোরাম অব বাংলাদেশের সভাপতি হুমায়ূন রশীদ বলেন, এখন আমাদের অর্থনীতিতে টাকা দরকার। তাহলে নতুন উদ্যোক্তা বাড়বে, কর্মসংস্থান বাড়বে।
অর্থনীতিবিদদের পরামর্শ, অভ্যন্তরীণ অবকাঠামো শক্তিশালী করার পাশাপাশি মনোযোগ দিতে হবে রপ্তানি বাজারে অংশগ্রহণ বাড়ানোর দিকে।
অর্থনীতিবিদ জাইদী সাত্তার বলেন, আগের থেকে প্রবৃদ্ধি বাড়ছে আরো বাড়বে। রপ্তানি বাড়ানোর জন্য ব্যবস্থা নিতে হবে। অভ্যন্তরীণ অবকাঠামো শক্তিশালী করতে হবে।
২০২১ সালে জাতিসংঘের করা মধ্যবর্তী পর্যালোচনায় টিকে গেলে, ২০২৪ সালে হবে আরও একটি মূল্যায়ন; সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ঐ বছরই উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে বাংলাদেশ পাবে চূড়ান্ত স্বীকৃতি।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.