সংবাদ শিরোনাম
জগন্নাথপুরে আরো ২জন করোনা আক্রান্ত: মোট আক্রান্ত ১৬৩  » «   জগন্নাথপুরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান:জরিমানা আদায়  » «   সুনামগঞ্জের ধর্মপাশায় গুমাই নদী থেকে শ্রমিকের লাশ উদ্ধার  » «   প্রেমিকের টানে ভারতীয় তরুণী সুনামগঞ্জে:তারপর..   » «   রশীদ পরিবারের পক্ষে ওসমানী হাসপাতালে চিকিৎসাসামগ্রী প্রদান  » «   সাংবাদিক ওলিউর রহমানের মাতার মৃত্যুতে সিলেট বিভাগীয় অনলাইন প্রেসক্লাবের শোক  » «   সাংবাদিক ওলিউর রহমানের মাতার মৃত্যুতে জেলা প্রেসক্লাবের শোক  » «   সিলেটে কমিটি নিয়ে ‘হাওয়া গরম’ আওয়ামী লীগে  » «   ১৮নং ওয়ার্ডে পুলিশিং কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত  » «   নির্বাহী প্রকৌশলী রুহুল আলমের মায়ের মৃত্যুতে শোক জ্ঞাপন করেছেন সিসিক মেয়র  » «   মাছিমপুরে জুয়াড়ি ধরিয়ে দেওয়ায় ব্যবসায়ীকে মারধর, দোকান ভাংচুর, টাকা ছিনতাই  » «   নগরীর চালিবন্দর এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৩ জুয়াড়িকে আটক করেছে পুলিশ  » «   ওসমানীনগরে কিশোরী ধর্ষণের অভিযোগে ১ জন গ্রেপ্তার  » «   ওসমানীনগরে ব্যবসার প্রতিষ্ঠান আগুন  » «   সুনামগঞ্জের চরনারচর ইউনিয়নে ২০৮টি অসহায়ও দরিদ্র পরিবারেরমধ্যে ভেড়া বিতরণ  » «  

তীব্র দাবদাহে বিহারে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৮৪

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::ভারতের বিহারে গত কয়েকদিনের তীব্র দাবদাহে হিটস্ট্রোকে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৮৪ জনে দাঁড়িয়েছে। মঙ্গলবার নতুন করে ২৮ জনের মৃত্যুর জানিয়েছে দেশটির স্বাস্থ্য বিভাগ। অসুস্থ হয়ে এখনও বহু মানুষ হাসপাতালে ভর্তি থাকায়, মৃতের সংখ্যা আরও বাড়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। তাপমাত্রা ৫০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে পৌঁছানোয় ১৪৪ ধারা জারি করেছে প্রশাসন।
তীব্র দাবদাহে ভারতের বিহারের পরিস্থিতি দিন দিন অবনতি হচ্ছে। আষাঢ় এলেও দেখা নেই বৃষ্টির। উল্টো প্রতিদিনই বাড়ছে তাপমাত্রা। প্রচণ্ড গরমে হিটস্ট্রোকে মৃতের সংখ্যা ১৮০ ছাড়িয়েছে। হাসপাতালে ভর্তি আরো অনেকে। স্বাস্থ্যকেন্দ্রগুলোতে রোগীদের চাপ বাড়ায় তিল ধারণের ঠাঁই নেই। মেঝেতে শুয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন গরমে অসুস্থ হয়ে পড়া অনেকেই।
তবে রাজ্যটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী দাবি করেছেন, প্রত্যেকটি হাসপাতালেই রোগীদের সাধ্যমতো চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।
ভারতের বিহার স্বাস্থ্যমন্ত্রী মঙ্গল পান্ডে বলেন, নতুন করে আরও অনেকে মারা গেছেন। পরিস্থিতির আপাতত কোনো উন্নতি নেই। জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাসা থেকে বের না হওয়ার অনুরোধ জানাচ্ছি আমরা।
মঙ্গলবার সবচেয়ে বেশি তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে বিহারের গয়ায়। এখানে তাপমাত্রা ৫০ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছোঁয়ায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। প্রশাসন বলছে, জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের না হতে। গয়ার পাশাপাশি তীব্র গরম রয়েছে ঔরাঙ্গবাদ, পাটনা, নওদা জেলাতেও। এ পরিস্থিতিতে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে গ্রীষ্মের ছুটি বাড়ানো হয়েছে।
এদিকে বৃষ্টি হলেও মধ্যপ্রদেশ, গুজরাট এবং রাজস্থানে তাপমাত্রা ৪৬ ডিগ্রির নিচে নামেনি।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.