সংবাদ শিরোনাম
নগরীর সোবহানীঘাট এলাকা থেকে গাড়ী ভর্তি ভারতীয় সুপারীসহ আটক ১  » «   লন্ডনে সাংবাদিক শফিকুলকে ফার্মল্যান্ড ফুড এন্ড এগ্রো ইন্ড্রাস্ট্রিজ লিমিটেডের সংবর্ধনা  » «   দক্ষিণ সুরমা থেকে ইয়াবাসহ ব্যবসায়ী আটক  » «   নগরীর ঘাসিটুলা সবুজ সেনা থেকে ৪ জুয়াড়ি গ্রেফতার  » «   মোগলাবাজারে বৈদ্যুতিক পোল চুরিকালে সাত জন আটক  » «   পপি আত্মহত্যা: প্ররোচরনা আইনে মামলায় দুলাভাই গ্রেপ্তার  » «   সুনামগঞ্জে ইয়াবাসহ আটক এক  » «   সিলেটে আদালতে বিচারাধীন ৭২ মামলার অবশিষ্ট মালামাল ধ্বংস  » «   নগরীর মহাজনপট্টি থেকে সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার  » «   আজ হেমন্ত: খুব নীরবে শুরু হলো ফসলের ঋতু  » «   বুয়েট ছাত্র আবরার হত্যা: মাঠ পর্যায়ের আন্দোলনের ইতি  » «   হাগিবিসে বিধ্বস্ত জাপান, নিহত বেড়ে ৭৪  » «   পাবিপ্রবি’তে বিক্ষোভ, ডীনসহ ৩ শিক্ষক অবরুদ্ধ  » «   নিউজিল্যান্ডে বাংলাদেশী ২ বিধবার মানবিক আবেদন  » «   কূটনীতিকরা শিষ্টাচার লঙ্ঘন করেছেন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী  » «  

অর্ধনগ্ন ছবি তুলে দেশছাড়া ইরানি যুবতী মডেল

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::নিজের অর্ধনগ্ন ছবি পোস্ট করে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন ইরানের মডেল নেগজিয়া (২৯)। রেভুল্যুশনারি গার্ডস তার ওই ছবিকে অশ্লীল ও নির্লজ্জ বলে আখ্যায়িত করেছে। এ জন্য তিনি দেশ ছাড়তে বাধ্য হয়েছেন। তাকে দেখা গেছে প্যারিসে। নেগজিয়া ওইসব ছবি তুলেছিলেন ২০১৭ সালে। তখন থেকেই তিনি রেভুল্যুশনারি গার্ডসের রোষানলে পড়েন। তার দাবি, তার অর্ধনগ্ন কতগুলো ছবি একজন ফটোগ্রাফার পুলিশের হাতে তুলে দেয়ার পর থেকে তিনি এমন রোষে পড়েছেন। তার আশঙ্কা, এর মধ্য দিয়ে ইরানে কঠোরভাবে অনুসরণ করা শরিয়া আইন লঙ্ঘনের দায়ে তিনি কঠোর শাস্তির মুখোমুখি হবেন।

লা প্যারিসিয়েন পত্রিকাকে তিনি বলেছেন, পরিস্থিতি এতটাই খারাপ হয়েছে যে, একদিন আমাকে আমার পোশাকসহ একটি ব্যাগ মাত্র ১০ ইউরোতে বিক্রি করে দিতে হয়েছে। কারণ, আমার পেটে তখন অনেক ক্ষুধা। এটা বিক্রি না করলে আমি খাবার কিনতে পারছিলাম না। এত দুর্ভোগ সত্ত্বেও তিনি তার কৃতকর্মের জন্য মোটেও অনুশোচনা করেন না। তিনি বলেন, আমি একজন গর্বিত নারী। আমি বেরিয়ে এসেছি। ভেঙে দিয়েছি আইন।

ফ্রান্সে পৌঁছার পরই নেগজিয়া আশ্রয় চাওয়ার কাগজপত্র সংগ্রহ করতে শুরু করেন। জমা দেন দরকারি সব ডকুমেন্ট। কিন্তু তার বিষয়টি এখনও চূড়ান্ত করা হয় নি।  তার এই কাহিনী ফ্রাঞ্চের মিডিয়ায় প্রকাশিত হওয়ার পর একটি অস্থায়ী আশ্রয়শিবিরে তার ঠাঁই হয়েছে। এখন ফরাসি সরকার তার বিষয়টি রিভিউ করছে।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.