সংবাদ শিরোনাম
৭৫ বছর বয়সে কন্যা সন্তানের মা হলেন ভারতীয় নারী  » «   দিরাইয়ে তুহিন হত্যাকাণ্ড: ১০ জনকে আসামি করে মামলা  » «   শায়েস্তাগঞ্জে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ডাকাত নিহত  » «   রোনালদোর ইতিহাসগড়া ম্যাচে পর্তুগালের হার  » «   সুন্দরবনে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৪ বনদস্যু নিহত  » «   মেক্সিকোতে অস্ত্রধারীদের গুলিতে নিহত ১৩ পুলিশ  » «   ধামরাইয়ে চার শিশুকে হাত-পা বেঁধে ধর্ষণ  » «   টাঙ্গাইলে মা ও মেয়েকে গলাকেটে হত্যা, প্রধান আসামি গ্রেপ্তার  » «   নবীগঞ্জে কর্মরত সাংবাদিকদের মতবিনিময়  » «   ফেঞ্চুগঞ্জে শাহজালাল সার কারখানায় চুরির অভিযোগে গ্রেফতার ২ কর্মকর্তা  » «   জকিগঞ্জে নবম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে টমটম থেকে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষন  » «   নগরীর শামীমাবাদ থেকে কুখ্যাত ‘ডাকাত’ জয়নাল গ্রেপ্তার  » «   মাধবপুর নয়াপাড়া ইউনিয়ন নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী জাবেদ বিজয়ী  » «   নবীগঞ্জের দেবপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে নৌকা প্রতীক বিজয়ী  » «   হবিগঞ্জে দুই মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে নিহত ১  » «  

প্লাস্টিক বর্জ্য জমা দিলেই মিলবে খাবার

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::প্লাস্টিক মুক্ত পৌরএলাকা গড়তে অভিনব সিদ্ধান্ত নিলো ভারতের ছত্তিশগড়ের অম্বিকাপুর মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশন। 
অম্বিকাপুরের প্রধান বাসস্ট্যান্ডে তৈরি হয়েছে গারবেজ ক্যাফে। প্লাস্টিকের তৈরি জিনিসপত্র ক্যাফেতে নিয়ে আসলে খাবার দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পৌরসভা। দেশটির গণমাধ্যম জানিয়েছে, প্লাস্টিক মুক্ত এলাকা গড়তে তাদের এই পদক্ষেপ।
এই গারবেজ ক্যাফেতে ১ কিলোগ্রাম প্লাস্টিকের তৈরি জিনিস দিলেই মিলবে বিনামূল্যে ভরপেট খাবার। হাফ কিলোগ্রাম প্লাস্টিকের জিনিস এনে দিলে পাওয়া যাবে ব্রেকফাস্ট।
মূলত দরিদ্র মানুষ ও কাগজ কুড়ানিদের জন্যই এই ব্যবস্থা। কর্পোরেশন এর পক্ষ থেকে এই ক্যাফের জন্য ধার্য করা হয়েছে পাঁচ লক্ষ টাকা।
অম্বিকাপুরের মেয়র অজয় টিরকে জানিয়েছেন, অম্বিকাপুর মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশনের কঠিন বর্জ্যের প্রজেক্ট সাফল্যের মুখ দেখেছে। এবার নতুন কিছু করতে চেয়েছিলাম। প্লাস্টিক মুক্ত করতে নয়া নিয়ম, এলাকা থেকে এক কিলোগ্রাম প্লাস্টিক দ্রব্য জমা দিলে মহিলা বা পুরুষকে বিনামূল্যে খাবার দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়ছে।
তিনি জানান, শুধু ময়লা কুড়ানি দরিদ্র মানুষ নয় গৃহস্থরা চাইলেও একই পদ্ধতিতে গারবেজ ক্যাফে থেকে খাবার নিতে পারবেন৷
তিনি আরও জানান, বিভিন্ন জায়গা বাড়ি বাড়ি গিয়ে প্লাস্টিকের জিনিসপত্র সংগ্রহ করার কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে। আমরা প্লাস্টিকের বর্জ্য দিয়ে ফের নতুন কিছু করার ভাবছি। সেই প্রকল্পটিও সাফল্য পাবে, সেই আশাই করছি।

অম্বিকাপুরে ইতিমধ্যেই একটা রাস্তা তৈরী করা হয়েছে প্লাস্টিকের টুকরো আর আসফ্যাল্ট এর মিশ্রন ব্যবহার করে। এই রাস্তাটি তৈরী করত প্রায় আট লক্ষ প্লাস্টিকের ব্যাগ ব্যবহার করা হয়। এবং অ্যাসফ্যাল্ট মেশানোর ফলে জল নিকাশী ব্যবস্থার কোনও ক্ষতি হয় নি। এই প্রকল্পটি পরিবেশ সচেতনতার অন্তর্ভূক্ত।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.