সংবাদ শিরোনাম
আজ হেমন্ত: খুব নীরবে শুরু হলো ফসলের ঋতু  » «   বুয়েট ছাত্র আবরার হত্যা: মাঠ পর্যায়ের আন্দোলনের ইতি  » «   হাগিবিসে বিধ্বস্ত জাপান, নিহত বেড়ে ৭৪  » «   পাবিপ্রবি’তে বিক্ষোভ, ডীনসহ ৩ শিক্ষক অবরুদ্ধ  » «   নিউজিল্যান্ডে বাংলাদেশী ২ বিধবার মানবিক আবেদন  » «   কূটনীতিকরা শিষ্টাচার লঙ্ঘন করেছেন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   সোনাগাজীতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৩৭ মামলার আসামি নিহত  » «   মেক্সিকোতে অস্ত্রধারীদের গুলিতে নিহত ১৩ পুলিশ  » «   অস্ট্রেলিয়ায় প্রতিবাদের নামে নগ্নতা  » «   সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের স্থলে এখন রাশিয়া!  » «   হবিগঞ্জে ইয়াবাসহ স্বামী-স্ত্রী আটক  » «   রবিবারে জেলার শ্রেষ্ঠ ওসির সম্মাননা আর সোমবারে ৪৫০ কোটি টাকার অভিযোগে মামলা  » «   তুহিনের হত্যাকারী তার বাবা, চাচা এবং চাচাতো ভাই আরও একটি হত্যাসহ দুটি মামলার আসামি  » «   পাষন্ড বাবা কোলে করে নিয়ে যান’ চাচা ও চাচাতো ভাই’ তুহিনকে খুন করে  » «   তুহিনের খুনিদের পক্ষে আদালতে দাড়াবেননা কোন আইনজীবি  » «  

ঈদে ২০ হাজার কোটি টাকার নতুন নোট

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::ঈদুল আজহা উপলক্ষে বাজারে আসছে ২০ হাজার কোটি টাকার নতুন নোট। আগামী ২রা আগস্ট থেকে শুরু হয়ে ৭ই আগস্ট পর্যন্ত নতুন নোট বিনিময় করবে বাংলাদেশ ব্যাংকসহ বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলো।
কেন্দ্রীয় ব্যাংক সূত্রে জানা গেছে, নতুন টাকা প্রাপ্তি নিশ্চিত করতে বাংলাদেশ ব্যাংক তার সব অফিসের পাশাপাশি মতিঝিল অফিসে বায়োমেট্রিক বা হাতের ছাপ পদ্ধতিতে তথ্য সংরক্ষণের ভিত্তিতে জনসাধারণের জন্য নতুন নোট বিনিময়ের ব্যবস্থা করছে। অন্যান্যবারের মতো এবারও কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পাশাপাশি রাজধানীর ৩০টির বেশি ব্যাংক
নতুন নোট বিনিময়ের ব্যবস্থা করেছে। তবে এবার ২ টাকা ও ৫ টাকার নতুন নোট বিনিময়ের সুযোগ না থাকলেও ১০, ২০, ৫০ টাকার পাশাপাশি ১০০ টাকার নতুন নোট নেয়া যাবে। আগামী ২রা আগস্ট থেকে শুরু হচ্ছে নতুন টাকা বিনিময়। চলবে ৭ই আগস্ট পর্যন্ত। প্রত্যেক ব্যক্তি ১০ টাকা, ২০ টাকা,

৫০ টাকা এবং ১০০ টাকার একটি করে প্যাকেট নিতে পারবেন।

সে হিসেবে একজন ব্যক্তি সর্বোচ্চ ১৮ হাজার টাকার নতুন কাগুজে নোট নিতে পারবেন।
কেন্দ্রীয় ব্যাংক কর্মকর্তারা বলছেন, ঈদে নতুন নোটের চাহিদা মাথায় রেখে প্রতিবছরই পর্যাপ্ত নতুন নোট বাজারে ছাড়ে বাংলাদেশ ব্যাংক। নতুন নোট নিয়ে যাতে কেউ ব্যবসা না করতে পারে সে লক্ষ্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের মতিঝিল অফিসে বিশেষ বিনিময় কাউন্টারও খোলা হয়। এ ছাড়া ৩০টি বাণিজ্যিক ব্যাংক শাখা থেকেও নতুন নোট বিতরণ করা হয়।
বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মো. সিরাজুল ইসলাম জানান, আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষ্যে ১৭ থেকে ২০ হাজার কোটি টাকার নতুন নোট বিনিময়ের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। এর মধ্যে একটি করে শাখা ১০ লাখ টাকা করে পেতে পারে। তিনি বলেন, গত বছরের মত এবছরও বায়োমেট্রিক বা হাতের ছাপ পদ্ধতিতে তথ্য সংরক্ষণের ভিত্তিতে জনসাধারণের জন্য নতুন নোট বিনিময় করতে পারবেন। এর ব্যতিক্রম হবে না।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.