সংবাদ শিরোনাম
জগন্নাথপুরে বন্যায় পানিতে তলিয়ে গেছে রাস্তা: পানির স্রোতে রাস্তা ভেঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন  » «   গোয়াইনঘাটে করোনায় আরও এক ব্যক্তির মৃত্যু  » «   গোয়াইনঘাটে অসহায় ও বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থদের পাশে দাঁড়ালেন জেলা প্রশাসক  » «   সাবরিনার গ্রেফতারে তাদের স্বপ্নদোষ শুরু হয়েছে:ফেসবুকে মিলি সুলতানা  » «   থানায় যেভাবে রাত কাটে সাবরিনার’তার সিম জালিয়াতি’কললিস্টে ভিআইপিদের নম্বর  » «   বাংলাদেশে করোনায় ১২ এবং উপসর্গ নিয়ে ৯ সাংবাদিকের মৃত্যু, দায়ী সুরক্ষা সরঞ্জামের অভাব  » «   কমলগঞ্জে শাহেদের অবস্থান নিয়ে গুঞ্জন  » «   ওসমানীনগরে চেয়ারম্যান রবের মৃত্যু: উমরপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের শোক  » «   রশি দিয়ে বেঁধে নেয়ার হুমকি দেওয়া ওসামীনগরের ওসির বদলি  » «   দিরাইয়ে প্রথম করোনায় একজনের মৃত্যু  » «   সুনামগঞ্জে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ ৬৫০টি পরিবারের মাঝে খিচুরী বিতরণ  » «   উন্নয়ন কাজ পরিদর্শনকালে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে চেয়ারম্যানের মৃত্যু  » «   সুনামগঞ্জে সুরমা নদীর পানি বিপদ সীমার ৩১ সেঃ মিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে  » «   কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ওরফে পাথর শামীম রাতারাতি আঙুল ফুলে কলাগাছ:একাধিক মামলা  » «   শিক্ষকের যৌন লালসার শিকার ছাত্রীরা..এমন একটি ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল  » «  

বিভাগীয় মহাসমাবেশকে ঘিরে সিলেট বিএনপিতে ব্যাপক তোড়জোড় চলছে

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর সিলেটে সবচেয়ে বড় রাজনৈতিক কর্মসূচি বিভাগীয় মহাসমাবেশ করতে যাচ্ছে বিএনপি। আগামী মঙ্গলবার অনুষ্ঠিতব্য এই মহাসমাবেশকে ঘিরে সিলেট বিএনপিতে ব্যাপক তোড়জোড় চলছে। মহাসমাবেশের আনুষ্ঠানিক অনুমতি না মিললেও প্রচারণা চলছে বেশ জোরেশোরে। বিএনপি নেতারা বলছেন, এই সমাবেশে ব্যাপক জনসমাগমের মাধ্যমে সরকারকে ‘বার্তা’ দেওয়া হবে।

খালেদা জিয়ার মুক্তি, তারেক রহমানের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহার ও গণতন্ত্রকামী মানুষের ভোটাধিকার ‘প্রতিষ্ঠার’ দাবিতে চলতি মাসের শুরুর দিকে সিলেটে বিভাগীয় মহাসমাবেশের ডাক দেয় বিএনপি।  গত ১০ সেপ্টেম্বর সমাবেশের দিকনির্দেশনা দিয়ে যান বিএনপির কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান ও সিলেট বিভাগীয় সমন্বয়ক ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন। ২৪ সেপ্টেম্বর সমাবেশের জন্য সিলেট রেজিস্ট্রারি মাঠ নির্ধারণ করা হয়। সপ্তাহখানেক আগে সমাবেশের অনুমতি চেয়ে পুলিশের কাছে আবেদন করে বিএনপি। তবে শনিবার পর্যন্ত অনুমতি পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ। আজ রবিবারের মধ্যে অনুমতি পাওয়ার বিষয়ে তিনি আশা প্রকাশ করেছেন।

বিএনপি নেতা আলী আহমদ জানান, সমাবেশে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ স্থায়ী কমিটির সদস্যরা বক্তব্য রাখবেন।

জানা গেছে, এই বিভাগীয় মহাসমাবেশকে ঘিরে গত কয়েক দিন ধরে সিলেটজুড়ে তৎপরত হয়ে ওঠেছেন বিএনপির নেতাকর্মীরা। সমাবেশে ব্যাপক শোডাউন করতে চান তারা। এ লক্ষ্যে সিলেটের সকল উপজেলা ও পৌর বিএনপির নেতৃবৃন্দকে নিয়ে বৈঠক করেছে জেলা বিএনপি। মহানগরের আওতাধীন ২৭টি ওয়ার্ডের নেতৃবৃন্দের সাথেও বৈঠক হয়েছে মহানগর বিএনপির। বিএনপির এই মহাসমাবেশে লাখো লোক সমাগম ঘটাতে চায়। সে লক্ষ্যে সিলেট বিভাগের চারটি জেলাতেই প্রচারণা চালাচ্ছেন দলটির নেতারা। বিশেষ করে সিলেট জেলার ইউনিয়ন পর্যায়েও চলছে প্রচারণা। একইসাথে জেলা ও মহানগর বিএনপির দায়িত্বশীল নেতাদের সমন্বয়ে দফায় দফায় প্রস্তুতি সভাও চলছে। সমাবেশকে কেন্দ্র করে মহানগর বিএনপির গঠন করেছে ৯টি উপকমিটি। শনিবার নগরীর কোর্টপয়েন্ট থেকে জিন্দাবাজার পর্যন্ত লিফলেট বিতরণ করেছেন জেলা বিএনপির নেতৃবৃন্দ। এছাড়া সমাবেশ সফলের আহবান জানিয়ে সিলেটজুড়ে চলছে পোস্টারিংও।

মহাসমাবেশ থেকে সরকারকে ‘বার্তা’ দেওয়ার কথা বলছেন সিলেট জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের শামীম। তিনি বলেন, ‘এই সমাবেশ থেকে সরকারকে পরিষ্কার বার্তা দেওয়া হবে যে, খালেদা জিয়ার মুক্তি নিয়ে আর কোনো টালবাহনা চলবে না।’

সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ বলেন, ‘সিলেটজুড়ে আমাদের ব্যাপক প্রচারণা চলছে। নেতাকর্মীরাও উজ্জীবিত হয়ে ওঠেছেন।’

সিলেট মহানগর বিএনপির সভাপতি নাসিম হোসাইন সমাবেশে ব্যাপক লোকসমাগম হবে বলে মন্তব্য করেন।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.