সংবাদ শিরোনাম
মানুষকে রক্ষার চেষ্টা করছি প্রাণপণে : প্রধানমন্ত্রী  » «   জগন্নাথপুরে অজ্ঞাতনামা লাশের পরিজয় পেতে পুলিশের সাহায্য কামনা  » «   গোয়াইনঘাটে আরও এক করোনা রোগী শনাক্ত: উপজেলায় মোট আক্রান্ত ৮  » «   জগন্নাথপুরে পুলিশ সদস্য সহ ২জন করোনায় আক্রান্ত  » «   দিরাইয়ে বজ্রপাতে ১৪ বছরের কিশোরের মৃত্যু  » «   তামাবিল স্থলবন্দর দিয়ে দেশে ফিরলেন ২ বাংলাদেশি  » «   সাংবাদিক ফয়সল আহমদ বাবলুর মাতৃবিয়োগ-গোয়াইনঘাট প্রেসক্লাবের শোক  » «   দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে জাফলংয়ে যুবলীগ নেতা বহিষ্কার  » «   সাংবাদিক বাবলুর মাতার মৃত্যুতে সিলেট বিভাগীয় অনলাইন প্রেসক্লাবের শোক  » «   সিলেট বিভাগে নতুন করে আরও ৭৯ জনের করোনা শনাক্ত-মোট ১২৩৮  » «   জগন্নাথপুরে ৫০০ মসজিদে প্রধানমন্ত্রী সহায়তার চেক বিতরণ  » «   সুনামগঞ্জে র‍্যাবের ১৪ সদস্যসহ একদিনে ৩৯ জন করোনায় আক্রান্ত রেকর্ড,এ নিয়ে মোট ২১৩  » «   জগন্নাথপুরে হাওর থেকে এক অঞ্জাতনামা ব্যক্তির অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার  » «   জগন্নাথপুরে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত ১ ব্যক্তি: মোট ১০, সুস্থ ৬, আইসোলেশনে ৪  » «   দোয়ারাবাজারে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১ আহত ১০  » «  

দিরাইয়ে নৌকাডুবিতে এই পর্যন্ত ১০ জনের লাশ উদ্ধার

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে নৌকাডুবির ঘটনায় সাত শিশুসহ নিখোঁজ দশজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৪ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলার কালিয়াকোটা হাওরের করচা বিলে নৌকাডুবির পরপরই চার শিশুর লাশ উদ্ধার করা হয়।

বুধবার ভোরে আরও পাঁচটি লাশ উদ্ধার করার পর বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সর্বশেষ নিখোঁজ মেয়েটির লাশ পাওয়া যায়।

দিরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কে এম নজরুল ইসলাম এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নিহতরা হলেন- উপজেলার নোয়ারচর গ্রামের আবজল মিয়ার ছেলেসোহান মিয়া (দেড় বছর), আসাদ মিয়া (৫), স্ত্রী আজিরুন (৩০), মাছিমপুর গ্রামের আরজ আলীর স্ত্রী রহিতুন নেছা (৩৫), জাসদ মিয়ার ছেলে শান্তা (৩), বাবুল মিয়ার ছেলে শামীম (২), বদরুল মিয়ার ছেলে আবির মিয়া (৩), পেরুয়া গ্রামের নছিব উল্লার স্ত্রী করিমা বিবি (৭০), ফিরোজ আলীর শহিদুল (৪) এবং দিরাই উপজেলায় মাসিমপুর গ্রামের তাসমিনা (১১)।পুলিশ ও নিহতের স্বজনরা জানান, পেরুয়া গ্রামের ফিরোজ আলীর ছেলের বিয়েতে যোগ দিতে তার ভগ্নিপতি আমিনুল ইসলামসহ ৩১ জন সন্ধ্যায় মাছিমপুর গ্রাম থেকে খোলা ট্রলারে পেরুয়া গ্রামের উদ্দেশে রওনা দেন। রাত সাড়ে আটটার পর যাত্রী বোঝাই ইঞ্জিনচালিত নৌকাটি প্রচণ্ড বাতাস ও ঢেউয়ের কবলে পড়ে ডুবে যায়। এ সময় হাওরের মধ্যে পুঁতে রাখা বাঁশ-কাঠা আঁকড়ে ধরে থাকেন ২১ জন। পরে আশপাশের গ্রামের লোকজন নৌকা নিয়ে তাদের উদ্ধার করেন।

এ ঘটনায় ছয় শিশুসহ দশজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) বিশ্বজিৎ দেব জানান, হাওরে নৌকাডুবির ঘটনায় এ পর্যন্ত ১০ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধার কাজে নিয়োজিত রয়েছে। সুনামগঞ্জের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল আহাদের নিদের্শক্রমে তাৎক্ষণিক নিহতদের পরিবারকে ৯০ হাজার টাকা প্রদান করা হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.