সংবাদ শিরোনাম
জগন্নাথপুরে হাওর থেকে এক অঞ্জাতনামা ব্যক্তির অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার  » «   জগন্নাথপুরে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত ১ ব্যক্তি: মোট ১০, সুস্থ ৬, আইসোলেশনে ৪  » «   দোয়ারাবাজারে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১ আহত ১০  » «   সিলেটে দক্ষিণ সুরমায় দু’দল বাস শ্রমিকের মধ্যে দেড় ঘন্টাব্যাপী সংঘর্ষ  » «   করোন:এক দিনে ৯৩ জন আক্রান্ত সিলেট বিভাগে:মোট ১০৪০ জন  » «   ভূমধ্যসাগরে ট্রলার ডুবিতে নিহত ৩৬: এ মামলার প্রধান আসামি রফিকুল গ্রেফতার  » «   সিলেট থেকে বাস চলাচল শুরু  » «   ছাতকে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এক ঔষধ ব্যবসায়ীর মৃত্যু  » «   সুনামগঞ্জে চেয়ারম্যানের অপসারনের দাবীতে অভিযোগ দায়ের  » «   সুনামগঞ্জে র‍্যাব ক্যাম্পের ১৬ জন সদস্যসহ মোট ২১ জন করোনায় আক্রান্ত  » «   জগন্নাথপুরে মানসিক রোগী দীর্ঘ এক বছর পর থানা পুলিশের সহযোগিতায় ফিরে পেল পরিবার  » «   রানীগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের ১৯-২০ বছরের উন্মুক্ত বাজেট পেশ  » «   জগন্নাথপুরে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছে আরেক জন  » «   জগন্নাথপুরে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা জরিমানা আদায়  » «   গোয়াইনঘাটে এসএসসিতে পাশের হার ৭৯.২৭ জিপিএ ৪৫ জন  » «  

ভারতের ভবিষ্যৎ অন্ধকার দেখছেন মমতা

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::জাগো বাংলা উৎসব সংখ্যা ১৪২৬ -এ নিজের কলমে মনের কথা তুলে ধরেছেন ভারতের তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দেশের সাম্প্রতিক অবস্থা নিয়েই তিনি এ কলাম লিখেছেন।
‘কিছু কথা কিছু ব্যথা’ শীর্ষক কলমে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় লিখেছেন, এবার লিখতে বসে মনটা ভারাক্রান্ত। দেশের কী হবে। আমরা সবাই এক থাকতে পারব তো? এমন একটি সরকার দিল্লির ক্ষমতায় এসেছে যারা গণতন্ত্র মানে না। সংবিধান মানে না।  যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামো মানে না। মানুষের মৌলিক অধিকারের কোনও মূল্য এরা দেয় না। দেশকে একদলীয় ব্যবস্থার পথে ঠেলে দিয়ে সুপার এমারজেন্সি কায়েম করা হয়েছে। শুধু বিজেপি থাকবে। আর সবাই জেলে যাবে। যে প্রতিবাদ করবে তার পেছনে এজেন্সি লাগিয়ে দেয়া হচ্ছে। দেশের এত খারাপ সময় স্বাধীনতার এই ৭২ বছরে কখনও আসেনি।
তিনি আরও লিখেছেন, এরা যদি রাজনীতি করত কিছু বলার ছিল না। এদের কাজ শুধু ভাগাভাগি। কোথাও ধর্মের ভিত্তিতে, কোথাও জাতির ভিত্তিতে। যেখানে যেমন সুট করে আর কী। ভুলভাল পদক্ষেপ করে দেশের অর্থনীতিকে দুমড়ে দেয়া হয়েছে। ভবিষ্যৎ অন্ধকার। যুবকদের হাহাকার। কোথাও চাকরি নেই। উল্টে চলছে ছাঁটাই। একের পর এক রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা হয় বিক্রি করে দেয়া হচ্ছে, নতুবা বন্ধ করা হচ্ছে। অর্থনীতির এতটাই খারাপ অবস্থা যে হাত পড়েছে রিজার্ভ ব্যাংকের তহবিলে। আগামী দিনে ব্যাংকে গচ্ছিত টাকা মানুষ পাবে কি না আমার সন্দেহ আছে।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.