সংবাদ শিরোনাম
স্বামী-সন্তান রেখে ৩০ বছরের শিক্ষিকা ১৮ বছরের কাঠমিস্ত্রির কাছে!  » «   শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি জালিয়াতিতে আটক ৬  » «   তিন শীর্ষনেতার পদত্যাগ নিয়ে এখনো নিশ্চুপ বিএনপি, ধীরে চলার পলিসি  » «   শহীদ নূর হোসেন মায়ের কাছে ক্ষমা চেয়ে বক্তব্য প্রত্যাহার রাঙার  » «   প্রথমবারের মত সৌদি আরবে স্থায়ী বসবাসের সুবিধা পেলেন ৭৩ জন, ২০২০ সালের মধ্যে লক্ষ্য ১ হাজার কোটি ডলার আয়  » «   ভারতে বিয়ের অনুষ্ঠানে রাইফেল হাতে নাগা বিদ্রোহী নেতার ছেলে ও তার কনে  » «   ইলেকট্রনিক মিডিয়ার কর্মীদের ওয়েজ বোর্ডের আওতায় আনতে রুল  » «   হৃদয়-শামীম জুটির দুর্দান্ত ইনিংসে শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে টাইগার যুবাদের লিড  » «   সরকারের ব্যর্থতার কারণেই দেশে দুর্ঘটনা ঘটছে, বললেন মির্জা ফখরুল  » «   রেলকর্তৃপক্ষকে চালকদের উপযুক্ত প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর  » «   স্নাতক ছাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সভাপতি নয়  » «   ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহতের পরিবারকে ১ লাখ ও আহতদের ১০ হাজার টাকা দেয়ার ঘোষণা রেলমন্ত্রীর  » «   কসবায় ‍দুই ট্রেনের সংঘর্ষে হতাহতের ঘটনায় রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক  » «   ট্রেন দুর্ঘটনায় হবিগঞ্জ জেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি ইউসুফ সহ নিহত ১৬  » «   সিগন্যাল অমান্য করে সংঘর্ষ ঘটায় তুর্ণা নিশীথা ট্রেনটি , অভিযোগ প্রত্যক্ষদর্শীদের  » «  

চুনারুঘাটে কিশোরীকে ধর্ষণের পর শ্বাসরোধ করে হত্যা, লাশ উদ্ধার

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::হবিগঞ্জর চুনারুঘাট উপজেলার সীমান্ত এলাকা দুধপাতিল গ্রামের মুহুরী ছড়ায় অদূরে সাল বাগান থেকে তামান্না আক্তার  প্রিয়া (১৪) নামের এক কিশোরীর  লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পুলিশ বলছে মেয়েটিকে ধর্ষণের পর শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। এঘটনায় তিন জনকে আটক করা হয়েছে। সে গাজীপুর ইউনিয়নের দুধপাতিল গ্রামের আব্দুল হান্নানের মেয়ে।

মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) ১১টায়  দুধপাতিল মহুরী ছড়ার পাশে বন্দের বাড়ি পশ্চিমে সাল  বাগানে একটি মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে চুনারুঘাট থানার এসআই মোস্তফা কামালের নেতৃত্বে একদল পুলিশ স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় মৃত দেহটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন। সংবাদ পেয়ে মাধবপুর সার্কেল সহকারী সিনিয়র পুলিশ সুপার মোঃ নাজিম উদ্দিন ও চুনারুঘাট থানার ওসি শেখ নাজমুল হক  ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

তামান্নার পিতা মুদি ব্যবসায়ী আব্দুল হান্নান  জানান, আমি প্রতিদিনের ন্যায় দোকানে চলে আসি। সোমবার রাত অনুমান ৮টার সময় হঠাৎ তার ভাবী জুবেদা খাতুন ফোন দিয়ে জানায় তামান্নাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছেনা এরপর তিনি তড়িগড়ি করে দোকান বন্ধ করে তামান্নাকে খুঁজতে বের হন। হান্নান তার আত্মীয় স্বজনসহ সম্ভাব্য স্থানে খোঁজাখুঁজি করে তামান্নাকে কোথাও পাননি।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আব্দুল হান্নানের দুটি সন্তান রয়েছে। হান্নানের স্ত্রী সেলিনা বেগম দালাল চক্রের মাধ্যমে দেড় বছর পূর্বে  জীবিকা নির্বাহের জন্য সৌদি আরব চলে যান। এর পর থেকে বাড়িতে একা থাকে তার সাত বছরের ছোট ছেলে ও কিশোরী তামান্না। আব্দুল হান্নান সবসময় কাজের জন্য বাহিরে থাকেন। তাই তাদের দেখার মত কেউ ছিল না।

অপর একটি সূত্রে জানা যায়, তামান্নাকে বিদেশ পাঠাতে ছেয়েছিল তার পরিবারের লোকজন। এনিয়ে তার পরিবারে দেনদরবার চলে আসছিল । তামান্নার মৃত্যু নিয়ে স্থানীয়দের মাঝে চলছে নানা প্রশ্ন।  কেউ বলছেন বিদেশ পাঠানোর নামে তাকে কোন  দালাল চক্র  ধর্ষণের পর হত্যা করেছে। আবার কেউ বলছেন কোন প্রেম ঘটিত বিষয় নিয়ে এঘটনা হতে পারে । এনিয়ে এলাকায় চলছে নানা গুঞ্জন।

চুনারুঘাট থানার ওসি শেখ নাজমুল হক ঘটনার সত্যতা স্বীকার জানান, প্রাথমিক ভাবে ধারনা করা হচ্ছে মেয়েটিকে ধর্ষণের পর শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। এঘটনায় আমরা তিন জনকে আটক করেছি।  জিজ্ঞাসাবাদ চলছে।

মামলার তদন্তকারী  কর্মকর্তা এস আই শেখ আলী আজহার জানান, তামান্নার সুরতহাল রিপোর্টে প্রাথমিক অবস্থায় ধর্ষণের আলামত ও তার বাম গালে কামড়ের দাগ রয়েছে। লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে ঘটনার মূল রহস্য উদঘাটন হবে। আমাদের তদন্ত অব্যাহত।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.