সংবাদ শিরোনাম
রায়নগরে যুবক খুন:আটক ১  » «   ৩২ মাস পর জেগে উঠলেন ফুটবলার নূরী  » «   ছেলের কাছে হেরে গেলেন মাশরাফী  » «   দেশে করোনায় নতুন করে কেউ আক্রান্ত হয়নি  » «   হোম কোয়ারেন্টাইনে যেভাবে কাটছে খালেদা জিয়ার সময়  » «   করোনা কেড়ে নিলো আরেক বাংলাদেশির প্রাণ  » «   সতর্কতামূলক নিশ্চিতে প্রশাসনকে সহায়তা দিতে সিলেটে মাঠে নেমেছে সেনাবাহিনীর ১৫টি দল  » «   জৈন্তাপুরে ইউপি সদস্য সহ ৬ জন আটক  » «   করোনা: বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা ২৭ হাজার ছাড়ালো  » «   ইতালিতে একদিনে রেকর্ড ৯৬৯ জনের মৃত্যু  » «   স্পেনে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৭৬৯ জনের মৃত্যু  » «   জগন্নাথপুরে করোনা সংক্রামন রোধে থানা পুলিশের টহল জোরদার  » «   জগন্নাথপুরে করোনা ভাইরাস আতংকে স্বাভাবিক জীবন যাত্রা ব্যাহত  » «   ভাটিবাংলা এলপিএস ফাউন্ডেশন  কর্তৃক  শ্রমজীবি মানুষের মধ্যে সাবান ও মাস্ক বিতরণ   » «   গোলাপগঞ্জে কোদাল ও দা দিয়ে কুপিয়ে বাবাকে হত্যা করলো নিজ ছেলে  » «  

‌‘খালেদা জিয়াকে নিয়ে বারবার প্রশ্নের জবাব দেওয়ার সময় নেই’

সিলেটপোস্ট ডেস্ক::খালেদা জিয়া দুর্নীতির মামলায় কারাবন্দী হওয়ায় এখানে সরকার বা আওয়ামী লীগের করার কিছু নেই বলে জানিয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

আজ বুধবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউস্থ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ঢাকা বিভাগের অধীনস্থ সব সাংগঠনিক জেলা/মহানগর সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকদের নিয়ে আয়োজিত বিশেষ যৌথ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

বেগম খালেদা জিয়ার বিষয়ে বার বার আওয়ামী লীগের কাছে কিছু জানতে চেয়ে বিব্রত না করতে সাংবাদিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে দলের সাধারণ সম্পাদক বলেন, খালেদা জিয়াকে নিয়ে অনেক কথা হয়েছে, এই প্রশ্নটি করবেন না। আদালত যেটা সিদ্ধান্ত নেওয়ার নেবেন। এটা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে নেই। কাজেই একই প্রশ্ন বারবার করে বিব্রত করবেন না।

ওবায়দুল কাদের বলেছেন, দুর্নীতির দায়ে সাজা প্রাপ্ত বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন ইস্যুটি পুরোটাই আদালতের বিষয়।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার জামিনের ব্যাপারে আদালতে আবেদন করেছেন। আদালতই বিষয়টি ঠিক করবে। এটা কোনো রাজনৈতিক মামলা নয়, এটা দুর্নীতির মামলা। দুর্নীতির মামলায় যেটা হওয়ার সেটাই হবে। আদালত যেটা সিদ্ধান্ত নেয়ার নেবেন, এটা আওয়ামী লীগের হাতে নেই, শেখ হাসিনার হাতে নেই। আমাদের কারো কাছে নেই, আমাদের এখতিয়ারে নেই।

তৃণমূল থেকে সংগঠনকে শক্তিশালী করার নির্দেশনা দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, নিজের দল ভারি করার জন্য বিতর্কিত ব্যক্তিদের দলে টানবেন না। তাহলে দল শক্তিশালী হবে না, দুর্বল হয়ে যাবে।

তিনি বলেন, দল ক্ষমতায় আছে বলে সাংগঠনিক দুর্বলতা উপলদ্ধি করতে পারছেন না। দল সাংগঠনিকভাবে দুর্বল হলে সরকার কখনই শক্তিশালী হবে না। শক্তিশালী সরকার তখনই হবে যখন আওয়ামী লীগ শক্তিশালী হবে। আমাদের সব চাহিদাগুলো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একাই পূরণ করছেন। দল যদি শক্তিশালী থাকে তাহলে যে কোনো পরিস্থিত মোকাবেলা করতে পারব। যার যার জায়গা থেকে অবস্থান নিতে পারব।

যে সকল সাংগঠনিক জেলায় সম্মেলন হয়নি সেগুলো আগামী এপ্রিল মাস থেকে কাউন্সিল করার নির্দেশনা দিয়ে কাদের বলেন, কেউ ঘরে বসে কমিটি করবেন না। কমিটি করতে হলে অবশ্যই সম্মেলন করতে হবে। আর কোনো কমিটি ভাঙতে হলে অবশ্যই কেন্দ্রীয় কমিটির অনুমতি লাগবে। কমিটি ভাঙার ক্ষমতা আপনাদের নেই। আপনারা সুপারিশ করতে পারেন। কেন্দ্র থেকে সিদ্ধান্ত হবে আপনার সুপারিশ যথাযথ কিনা।

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.