সংবাদ শিরোনাম
৩২ মাস পর জেগে উঠলেন ফুটবলার নূরী  » «   ছেলের কাছে হেরে গেলেন মাশরাফী  » «   দেশে করোনায় নতুন করে কেউ আক্রান্ত হয়নি  » «   হোম কোয়ারেন্টাইনে যেভাবে কাটছে খালেদা জিয়ার সময়  » «   করোনা কেড়ে নিলো আরেক বাংলাদেশির প্রাণ  » «   সতর্কতামূলক নিশ্চিতে প্রশাসনকে সহায়তা দিতে সিলেটে মাঠে নেমেছে সেনাবাহিনীর ১৫টি দল  » «   জৈন্তাপুরে ইউপি সদস্য সহ ৬ জন আটক  » «   করোনা: বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা ২৭ হাজার ছাড়ালো  » «   ইতালিতে একদিনে রেকর্ড ৯৬৯ জনের মৃত্যু  » «   স্পেনে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৭৬৯ জনের মৃত্যু  » «   জগন্নাথপুরে করোনা সংক্রামন রোধে থানা পুলিশের টহল জোরদার  » «   জগন্নাথপুরে করোনা ভাইরাস আতংকে স্বাভাবিক জীবন যাত্রা ব্যাহত  » «   ভাটিবাংলা এলপিএস ফাউন্ডেশন  কর্তৃক  শ্রমজীবি মানুষের মধ্যে সাবান ও মাস্ক বিতরণ   » «   গোলাপগঞ্জে কোদাল ও দা দিয়ে কুপিয়ে বাবাকে হত্যা করলো নিজ ছেলে  » «   সিলেটে নিত্য প্রয়োজনীয় পন্যের দোকান ও ফার্মেসি ব্যতীত সকল দোকানপাট বন্ধ:রাস্তা ফাঁকা  » «  

পুলিশের উপর হামলা:অবশেষে চতুল বাজারের ব্যবসায়ীদের ক্ষমা প্রর্থনা

কানাইঘাট প্রতিনিধি::সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার চতুল বাজারে পুলিশের উপর হামলার ঘটনায় অবশেষে ক্ষমা চাইলেন বাজারের ব্যবসায়ীরা। ঘটনার পরপরই চতুল ইউপি’র চেয়ারম্যান মাওঃ আবুল হোসেন, সাবেক চেয়ারম্যান মুবশি^র আলী চাচাই ও চতুল বাজার ব্যবসায়ী সমিতির নেতৃবৃন্দ সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ বাজারে এসে দোকানপাট বন্ধ করে দেন। এর পরেই সাথে সাথে তারা থানায় এসে উক্ত অনাকাঙ্খিত ঘটনার জন্য পুলিশের নিকট তাৎক্ষণিক ক্ষমা প্রার্থনা করেন। এবং ভবিষ্যতে এরকম কর্মকান্ড আর হবে না মর্মে অঙ্গিকার করেন। বর্তমানে বাজারে পরিস্থিতি স্বাভাবিক। এরপর থেকে তারা সরকারী সকল নির্দেশনা যথাযথ ভাবে পালন করবে মর্মে জানা গেছে। জানা যায় সকালে চতুল ইউনিয়নের অন্তগর্ত হারাতৈল বাগরআগন গ্রামে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ এড়াতে থানার এসআই পান্না লাল দেব ও লিটন মিয়া একদল পুলিশ নিয়ে সেখানে যান। আসার সময় স্থানীয় চতুল বাজারে দেখতে পান সরকারী নির্দেশ অমান্য করে ব্যবসায়ীরা দোকানপাট খোলে রেখেছে। এতে সেখানে ব্যাপক জনসমাগম রয়েছে। বিষয়টি আচঁ করতে পেরে পুলিশ সদস্যরা চতুল বাজারের ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি সহ নেতৃবৃন্দকে নিয়ে করোনা ভাইরাস সংক্রামণ রোধে সরকারী নির্দেশ পালন কল্পে নিত্য প্রয়োজনীয় দোকান পাট ব্যাতিত অন্যান্য দোকানপাট বন্ধ করতে অনুরোধ করেন। তখন ব্যসায়ীরা দোকান বন্ধ না করিয়া সরকারী দল বদ্ধ হয়ে পুলিশের উপর হামলার চেষ্টা করে। এতে দেশের সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টা করে। এক পর্যায়ে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ ঘটনাস্থলে আসলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আসে। এ ব্যাপারে থানার অফিসার ইনচার্জ শামসুদ্দোহা পিপিএম জানিয়েছেন হামলার চেষ্টাকারী ব্যবসায়ীরা তাদের ভুল বুঝতে পেরে ক্ষমা চেয়েছে। বিধায় আমরা বিষয়টি খতিয়ে দেখে আইনগত ভাবে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার চেষ্টা করবো।

পোস্ট/এ আই/কে জি

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.