সংবাদ শিরোনাম
সুনামগঞ্জের তাহিরপুরের শনির হাওর থেকে এক নিখোঁজ শ্রমিকের লাশ উদ্ধার  » «   জগন্নাথপুরে আরো ২জন মহিলা করোনায় পজেটিভ, মোট আক্রান্ত ৯৮: সুস্থ ৮৩  » «   জগন্নাথপুর ২য় দফা বন্যা,পানিবন্দী হাজার হাজার মানুষ  » «   সিলেটে ট্যাঙ্ক লরি শ্রমিক নেতা খুন  » «   সিলেটে বন্যা:দ্বিতীয় দফায় পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন অর্ধলক্ষাধিক মানুষ  » «   সুনামগঞ্জে সুরমা নদীর পানি বিপদ সীমার ৫৪ সেঃ মিটার ও ছাতকে ১৬৬ সেন্টিঃ উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে  » «   ইতালিফেরত ১৪৭ জন হজক্যাম্পে কোয়ারেন্টিনে  » «   করোনা নিয়ে বাংলাদেশ থেকে আসা ব্যক্তি জ্বর-কাশি নিয়ে ইতালি ঘুরে বেড়ান!  » «   সাহারা খাতুনের মরদেহ আসছে, দাফন শনিবার  » «   খালেদা জিয়ার চিকিৎসা বিদেশেই বেশি প্রয়োজন: ফখরুল  » «   পাহাড়ি ঢলে গোয়াইনঘাটে তৃতীয় দফায় বন্যায় নিম্নঞ্চল প্লাবিত  » «   দিরাইয়ের ঘূর্নিঝড়ে ৯টি পরিবারের বসতঘড় লন্ডভন্ড,১২ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি  » «   জাফলংয়ে বাল্কহেডের ধাক্কায় বালুবোঝাই নৌকা ডুবিতে নিখোঁজ ২  » «   আওয়ামী লীগকে বারবার ক্ষমতায় আনতেই এমন উদ্যোগ নেয় ইসি’  » «   একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির কার্যক্রম দ্রুত শুরু হবে’  » «  

দোয়ারাবাজারে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১ আহত ১০

দোয়ারাবাজার প্রতিনিধি::সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারের পল্লীতে মাদ্রাসা ভবন নির্মাণকাজে বালুপাথর সংগ্রহ নিয়ে দুপক্ষের রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে আব্দুন নুর (৫৫) নামে এক ব্যক্তি নিহত এবং উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। নিহতের পুত্র সোহেল আহমদের অবস্থাও আশংকাজনক। সংঘর্ষের ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার বিকালে উপজেলার নরসিংপুর ইউনিয়নের দ্বীনেরটুক গ্রামে। নিহত আব্দুন নুর (৫৫) ওই গ্রামের মৃত আজমান আলীর পুত্র। আহত হয়েছেন নিহতের স্ত্রী , তার তিন পুত্র সোহেল আহমদ, রাসেল আহমদ  জুয়েল আহমদ এবং একই গ্রামের রবিউল হকের পুত্র মর্তুজ আলী (৩৫) সহ উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন। গুরুতর আহত আব্দুন নুর তার পুত্র সোহেল আহমদকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে মঙ্গলবার ( জুন) সন্ধ্যার দিকে কর্তব্যরত ডাক্তার আব্দুন নুরকে মৃত ঘোষণা করেন এবং তার ছেলে সোহেল আহমদকে আশংকাজনক অবস্থায় লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে। তাদের মাথা, বুক গলাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে সুলফির আঘাত রয়েছে।প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, সোমবার বিকালে ( জুন) স্থানীয় দ্বীনেরটুক আলিম মাদ্রাসার অনুমোদিত নতুন চতুর্থ তলা ভবনের নির্মাণকাজ সফল করার লক্ষ্যে মাদ্রাসার গভর্ণিং বডির সদস্যসহ স্থানীয় সচেতন মহল এক পরমর্শ সভায় বসেন। সভায় ভবনের নির্মাণকাজের চাহিদা মোতাবেক বালুপাথর সংগ্রহ নিয়ে দুপক্ষে প্রথম দফা বাকবিতন্ডা হয়। এরই জের ধরে পরদিন মঙ্গলবার ( জুন) বিকালে দ্বীনেররটুক গ্রামের আব্দুন নুর প্রতিপক্ষ মর্তুজ আলীর পক্ষদ্বয়ের মধ্যে সুলফি, ঝাঁটাসহ দেশিয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে তুমুল রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ বাঁধে। সংঘর্ষে আব্দুন নুর তার পুত্র সোহেল আহমদ গুরুতর আহত হন। গুরুতর জখমী পিতাপুত্রকে আশংকাজনক অবস্থায় সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। বাকিদের বিভিন্ন হাসপাতালসহ স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। বর্তমানে উত্তপ্ত পরিস্থিতি বিরাজ করছে

খবর পেয়ে দোয়ারাবাজার থানার এএসআই রাকিবুল হাসান এইমাত্র ( রাত পৌণে ৮টা) ঘটনাস্থলে পৌছে নিহতের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত হন বলে জানিয়েছেন। ওসি আবুল হাশেম বলেন, সন্ধ্যায় খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পাঠিয়েছি। পরিস্থিতি অস্থিতিশীল হলে ঘটনাস্থলে চাহিদামাফিক পুলিশ মোতায়েন করা হবে

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.