সংবাদ শিরোনাম
তাহিরপুরে বিদ্যালয়ের আয়-ব্যয়ের হিসাব দিতে প্রধান শিক্ষকের টালবাহানা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি ভাতা দেওয়ার নামে প্রতারণা, প্রতারককে জরিমানা  » «   মৌলভীবাজারের জুড়িতে ২ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ দুইজন গ্রেফতার  » «   দোয়ারাবাজারে বিদেশী মদের চালানসহ মাদক কারবারি আটক  » «   সুনামগঞ্জের তিন উপজেলার ১৫টি স্পটে চলছে সহশ্রাধিক অবৈধ ক্রাশার মেশিনের তান্ডব  » «   সুনামগঞ্জে পিতা ও কন্যার উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে অজ্ঞাত বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার  » «   নবীগঞ্জে যুদ্বাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ মিয়া আমাদের মধ্যে আর নেই! রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাপন  » «   জুড়ীতে ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ আটক ১  » «   ছাতকে আবুল হোসেনকে পরিকল্পিত হত্যা নাকি অন্য কারণ?প্রকৃত অপরাধীদের আড়াল করার অপচেষ্টা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বরখাস্ত   » «   তাহিরপুরে রাতের আঁধারে কৃষকের জমির ধান কেটে নিল প্রতিপক্ষের লাঠিয়াল বাহিনী   » «   ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে অ্যাম্বুলেন্স ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৭, আশংখাজনক ভাবে ৫জনকে সিলেট প্রেরন  » «   দিরাইয়ে আওয়ামীলীগের সম্মেলনে হামলার ঘটনায় ৭৭ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা  » «  

শুরুতেই ইইউ ইস্যু:পার্লামেন্টে ক্যামেরন

12সিলেটপোস্ট রিপোর্ট : ব্রিটেনে সদ্য অনুষ্ঠিত পার্লামেন্ট নির্বাচনের পর সোমবার দ্বিতীয় মেয়াদের প্রথম কার্যদিবসটি পার করলেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন। আর প্রথম দিনেই পার্লামেন্ট সদস্যদের প্রতি তার দেয়া ভাষণে উঠে এসেছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন ইস্যু। শুধু উঠে আসার মধ্যেই সীমাবদ্ধ নয়, সামনের দিনগুলোতে ২৮ জাতি-রাষ্ট্রের এই সংগঠনটির সঙ্গে যে ব্রিটেন কড়া দরকষাকষিতে বসতে যাচ্ছে, সেটাও একরকম নিশ্চিত করেছেন তিনি। সংবাদসূত্র : রয়টার্স, আইবি টাইমসবার্তা সংস্থাগুলো জানায়, সোমবার নিজ দলের পার্লামেন্ট সদস্যরা উল্লাসধ্বনি ও মুহুর্মুহু করতালির মধ্য দিয়ে বরণ করে নেন পুনর্নির্বাচিত নেতা ক্যামেরনকে। এরপর পার্লামেন্ট সদস্যদের প্রতি দেয়া ভাষণে ক্যামেরন বলেন, ‘ইউরোপীয় ইউনিয়নের সঙ্গে আমাদের আবার দরকষাকষির আলোচনায় বসতে হবে। নতুন এই আলোচনা বেশ শক্ত ও কঠোর হবে। কিন্তু এই নির্বাচনে জয়ী করে ব্রিটেনের জনগণ আমাদের সেই শক্ত আলোচনা চালানোর ক্ষমতা দিয়েছে।’রয়টার্স জানিয়েছে, নির্বাচনে জয়ের পরপরই ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রভাবশালী বেশ কয়েকজন নেতার সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছেন ক্যামেরন। খুব শিগগিরই ইইউ ইস্যু নিয়ে আলোচনায় বসার কথা চলছে বলেও জানিয়েছে কয়েকটি সূত্র।বিরোধের গোড়ায় থাকবে অভিবাসী ইস্যুঅনেক বিশ্লেষকই মনে করেন, এবারকার নির্বাচনে রক্ষণশীল পার্টির এমন অপ্রত্যাশিত বিজয়ের মধ্য দিয়ে মূলত অভিবাসীর সংখ্যা কমানোর পক্ষেই রায় দিয়েছে ব্রিটেনের বেশিরভাগ নাগরিক। নির্বাচনের আগে থেকেই ইউরোপীয় ইউনিয়নের সঙ্গে বেশ কঠিন সময় পার করছিল ক্যামেরন সরকার। এবার সেই নীরব সংঘাত সরব হয়ে উঠতে পারে_ এমনটাই ভাবছেন অনেকে। যেমন, ক্যামেরন সরকার প্রথম যে পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে, তা হলো_ অভিবাসীদের জন্য সামাজিক সেবা পাওয়াটা কঠিন করে তোলা। নতুন পরিকল্পনা অনুযায়ী, কোনো অভিবাসী অন্তত চার বছর টানা ব্রিটেনে অবস্থান করার আগে বাসস্থান-শিক্ষা-চিকিৎসার মতো সরকারি সামাজিক সেবাগুলো উপভোগ করতে পারবে না। অন্যদিকে, ইউরোপীয় ইউনিয়নের বর্তমান নীতি অনুযায়ী, একটি সদস্যরাষ্ট্র ইইউভুক্ত অন্য যে কোনো সদস্যরাষ্ট্রের নাগরিকদের সামাজিক সেবাগুলো দিতে বাধ্য। তাই দেখা যাচ্ছে, ক্যামেরনের সম্ভাব্য প্রথম সংস্কারটিই ইইউর নীতিমালার বিরোধী। সংবাদমাধ্যম আইবি টাইমস বলছে, নতুন এই সংস্কারের ক্ষেত্রে হয় ব্রিটেনকে ইইউর সঙ্গে একটি নতুন চুক্তিতে আসতে হবে, অথবা ব্রিটেনের মতো করে ইইউকে নিজেদের নীতিমালা সাজাতে হবে। তবে ইইউ সব সদস্যরাষ্ট্রের সম্মতি ছাড়া নিজেদের নীতিমালায় কোনো পরিবর্তন আনতে পারে না। আইবি টাইমসের মতে, ইইউর সদস্যরা সর্বসম্মতিক্রমে ভোট দিয়ে ব্রিটেনের সংস্কার মেনে নেবে_ এমন সম্ভাবনা নেই বললেই চলে।এ তো গেল ইউরোপীয় অভিবাসীদের কথা। সোমবার দ্য টাইমস জানিয়েছে, ভূমধ্যসাগর দিয়ে চোরাইপথে ইউরোপে পাড়ি জমানো অভিবাসীদের একটি অংশের ভার ব্রিটেনকে দেয়ার জন্য চাপ প্রয়োগ করছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন কর্তৃপক্ষ। বিষয়টি ব্রিটেন-ইইউর মধ্যকার চলমান নাজুক সম্পর্ককে আরো জটিল করে তুলতে পারে বলে জানিয়েছে বিবিসি।বিদেশের মাটিতে জন্ম নিয়েছে এবং বর্তমানে ব্রিটেনে অবস্থান করছে, দেশটিতে এমন ব্যক্তির সংখ্যা এখন প্রায় ৮০ লাখ। এছাড়া গত বছর সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোর অভিবাসীর সংখ্যা ২ লাখ ৪৭ হাজারে দাঁড়িয়েছে। ১৯৯৩ থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত ব্রিটেনে অভিবাসীর সংখ্যা বেড়ে প্রায় দ্বিগুণ হয়েছে। ক্যামেরন সরকার আপাতত অ-ইউরোপীয় অভিবাসীর সংখ্যা বছরে ২০ হাজারে নামিয়ে আনার কথা ভাবছে।স্কটল্যান্ড প্রশ্নে আর গণভোট নয়স্কটল্যান্ডের স্বাধীনতার প্রশ্নে ফের গণভোট আয়োজনের সম্ভাবনা বাতিল করে দিয়েছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন। গত রোববার চ্যানেল ফোর নিউজকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে ক্যামেরন বলেন, ‘আমরা একটি গণভোটের আয়োজন করেছিলাম। ব্রিটেনের সঙ্গে যুক্ত থাকার পক্ষে স্কটল্যান্ড তখন জোরালোভাবেই ভোট প্রয়োগ করেছে।’ তবে বিদ্যমান একটি পরিকল্পনার অধীনে স্কটল্যান্ডকে আরো ক্ষমতা দেয়ার বিষয়টিও নিশ্চিত করা হবে বলে জানিয়েছেন ক্যামেরন। গত বছর সেপ্টেম্বরে আয়োজিত গণভোটে ব্রিটেনের সঙ্গে যুক্ত থাকার পক্ষে ৫৫ শতাংশ ভোট পড়ে। ওই সময় স্কটিশ জাতীয়তাবাদীরা বলেছিলেন, বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য তারা পরবর্তী প্রজন্মকে দায়িত্ব দিয়ে যাচ্ছেন।উল্লেখ্য, সদ্য সমাপ্ত ব্রিটিশ পার্লামেন্ট নির্বাচনে স্বাধীনতার পক্ষে থাকা রাজনৈতিক দল স্কটিশ ন্যাশনাল পার্টি (এসএনপি) স্কটল্যান্ডে ৫৯টির মধ্যে ৫৬টি আসনেই জয়লাভ করেছে। এরপরই স্কটল্যান্ডের স্বাধীনতার পক্ষে ফের গণভোটের বিষয়টি আলোচনায় উঠে আসে। অন্যদিকে, নির্বাচনে ক্যামেরনের কনজারভেটিভ পার্টি এবার একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করেছে। তাই সরকার গঠনের জন্য কারো মুখাপেক্ষী হতে হয়নি তাদের।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.