সংবাদ শিরোনাম
আউশকান্দিতে ডাকাতি প্রস্তুতিকালে আগ্নেয়াস্ত্র সহ ৫ ডাকাতকে গ্রেফতার করেছে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ  » «   আওয়ামীলীগের লুটপাটের কারনে দেশে দুর্ভিক্ষ চলছে-সিলেট মহানগর বিএনপি  » «   এডিশন্যাল ডি আই জি কে জেলা শ্রমিক ঐক্য পরিষদের বিদায় সংবর্ধনা ও ক্রেষ্ট প্রদান  » «   আউশকান্দি কলেজিয়েট স্কুলে বখাটেদের উৎপাত বেড়ে গেছে!ছাত্রী ও অভিভাবকরা আতংকিত  » «   সুনামগঞ্জ জেলা ও দিরাই উপজেলা শিক্ষা অফিসারের বিরুদ্ধে দুদকে ঘুষ-দূর্নীতি ও অর্থ কেলেংকারীর অভিযোগ   » «   মাস খানেক পরই বিদ্যুৎ ঘাটতিসহ সবকিছুই ঠিক হয়ে যাবে-পরিকল্পনা মন্ত্রী মান্নান  » «   ওসমানীনগরে পরিমাপে পেট্রোল কম দেয়ায় সুপ্রীম ও আবীর ফিলিং স্টেশনকে জরিমানা  » «   জগন্নাথপুরে এক কৃষক হত্যা মামলায় ১ জনের আমৃত্যু ও ৫ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড  » «   সিলেটের ওসমানীনগরে মা-মেয়েকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ  » «   জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির অযৌক্তিক সিদ্বান্ত-বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল  » «   দেশের সংকট নিরসনের জন্য আওয়ামীলীগকে বিতাড়িত করার বিকল্প নেই :খন্দকার মুক্তাদির  » «   চুনারুঘাটে ছেলের হাতে মা খুন,ছেলে আটক  » «   জৈন্তাপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২  » «   দোয়ারাবাজারে ভারতীয় মালামালসহ আটক ২   » «   ওসমানীনগর থানার ওসি অথর্ব ও দুর্নীতিবাজ-মোকাব্বির খান এমপি  » «  

ফ্রান্সের আঞ্চলিক নির্বাচনে এগিয়ে কট্টর ডানপন্থীরা

44সিলেটপোস্ট রিপোর্ট :ফ্রান্সের আঞ্চলিক নির্বাচনের প্রথম দফা ভোট গ্রহণ শেষে দেখা গেছে, কট্টর ডানপন্থী এবং ন্যাশনাল ফ্রন্ট বা এফএন ১৩টি রাজ্যের মধ্যে ছয়টিতেই এগিয়ে রয়েছে।রোববারের নির্বাচনের পর বুথ ফেরত জরিপ বলছে, এফএন ৩০ শতাংশের বেশি ভোট পেয়েছে।সাবেক প্রেসিডেন্ট নিকোলাস সারকোজির নেতৃত্বাধীন মধ্য ডানপন্থী রিপাবলিকান পার্টি, ক্ষমতাসীন সোশালিস্ট পার্টির চেয়ে এগিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে।মিস্টার সারকোজির রিপাবলিকান দল পেয়েছে ২৭ শতাংশের বেশি ।
আর বর্তমান প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওলাদের সোশ্যালিস্ট পার্টি পেয়েছে ২২ শতাংশের বেশি ভোট ।দেশটির রাজধানী প্যারিসে তথাকথিত ইসলামিক স্টেট জঙ্গিদের হামলার ঘটনার তিন সপ্তাহ পরই এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হল।ন্যাশনাল ফ্রন্ট বা এফএন, অভিবাসনের সঙ্গে সন্ত্রাসবাদে যোগসূত্র রয়েছে বলে মনে করে।কট্টর ডানপন্থী এই দলের নেতা মারিন লু পেন আঞ্চলিক নির্বাচনে বড় সাফল্য পেলে ২০১৭ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দলটির সম্ভাবনা বাড়বে।“মারিন লু পেন বলেন, এটা সম্পূর্ণ ঐতিহাসিক একটি ফলাফল। অনন্য সাধারণ এবং বর্তমান প্রেক্ষাপটে একেবারেই অপ্রত্যাশিত।এর মধ্য দিয়ে পুরনো প্রথার চির অবসান ঘটলো এবং ডান ও বামপন্থী প্রতিনিধিদেরও মৃত্যু হল”।তবে চূড়ান্ত ফলাফলের জন্য অপেক্ষা করতে হবে আরও কয়েকদিন। কেননা আগামী ১৩ই ডিসেম্বর দ্বিতীয় দফা ভোট গ্রহণ চলবে।ফলাফল আসতে শুরু করার পর ক্ষমতাসীন সমাজতন্ত্রী দল ফিরতি ভোটে অন্তত দুটো অঞ্চল থেকে তাদের প্রার্থিতা প্রত্যাহার করার ঘোষণা দিয়েছে।এদিকে মিস্টার সারকোজি সমাজতন্ত্রী দলের সঙ্গে কোনও ধরনের জোট গঠনের সম্ভাবনা নাকচ করে দিয়েছেন।

সূত্র: বিবিসি

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.