সংবাদ শিরোনাম
হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে হামলা ও লুটপাঠের ঘটনায় দাঙ্গাবাজ কনর মিয়া ও কবির মিয়ার ২ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড  » «   ওসমানীনগরে হামলা চালিয়ে প্রবাসীর বসতঘর দখলের অভিযোগ  » «   দোয়ারাবাজারে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে সংঘর্ষ, আহত ৬  » «   সিলেটের ওসমানীনগরে চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধার, আটক ১  » «   দেশে আধুনিক ক্রীড়ার রূপকার ছিলেন শহীদ শেখ কামাল: প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী  » «   দক্ষিণ সুরমায় মেয়েকে ফিরে পেতে এক পিতার আকুতি  » «   বানারীপাড়ায় সাজাপ্রাপ্ত পলাতক দূর্দান্ত প্রতারক রঞ্জন গ্রেফতার  » «   দক্ষিন সুরমার সুলতানপুর-গহরপুর সড়কে দুর্ঘটনায় নিহত ৩  » «   সাংবাদিক অজয় পালের প্রতিকৃতিতে সিলেটের সর্বস্থরের নাগরিকদের শ্রদ্ধা নিবেদন  » «   ঐতিহ্যবাহী ‘মাছের মেলা’ শেরপুরে হাজারো মানুষের ঢল  » «   দক্ষিণ সুমরার বাইপাস এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় দুইজন নিহত  » «   আমাদের দেশের শিক্ষার্থীরা আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন হয়ে গড়ে উঠছে: মন্ত্রী ইমরান  » «   আওয়ামীলীগের বিদায় নিশ্চিত করে দেশে জনগণের সরকার প্রতিষ্টা করতে হবে :কাইয়ুম চৌধুরী  » «   অবকাঠামো উন্নয়ন এর মাধ্যমে দেশ গড়ার কাজ করতে হবে-প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী ইমরান আহমদ  » «   ছাতকে অধ্যক্ষ অপসারণের দাবীতে সড়ক অবরোধ করেছে ছাত্রলীগ  » «  

চুনারুঘাটে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে নিজের ৭ মাসের সন্তানকে হত্যা

3সিলেটপোস্ট রিপোর্ট:চুনারুঘাটের পল্লীতে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে নিজের ৭ মাসের সন্তানকে হত্যার অভিযোগে পিতা-মাতা ও দাদীসহ ৫ পরিকল্পনাকারীকে আসামী করে চুনারুঘাট থানা পুলিশ হত্যা মামলা দায়ের করেছে।  গতকাল মঙ্গলবার পুলিশের কাছে জবানবন্দি শেষে আটক মা, দাদী ও প্রতিবেশি মরতুজ আলীকে হবিগঞ্জ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। দুপুরে হবিগঞ্জ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রে আদালতের বিচারক শামসাদ বেগমের নিকট ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে নিহত শিশুর মা মিলন বেগম। এদিকে নিহত শিশুর ময়না তদন্ত শেষে আত্মীয় স্বজনের কাছে পুলিশ লাশ হস্তান্তর করলে গতকাল স্থানীয় চেয়ারম্যান হুমায়ুন কবির খানসহ উসমানপুর গ্রামবাসী লাশ দাফন করে। আহত অপর শিশু রিপা আক্তার (৩) সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। নিহত শিশুর পিতা লিটন মিয়া এখনও পলাতক রয়েছে। পুলিশ অপর দুই আসামীকে গ্রেফতার করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। চুনারুঘাট থানার ওসি (তদন্ত) ইকবাল হোসেন জানান, নিহত শিশুর পিতা লিটনসহ ৫জন এ হত্যাকান্ডের পরিকল্পনাকারী। লিটনকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।হবিগঞ্জ কোর্ট পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) কাজী কামাল উদ্দিন জানান, নিহতের মা মিলন বেগম ঘটনার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্ধি দিয়েছে। জবানবন্ধিতে ঘটনার বর্ণনা করেছেন। তবে তদন্তের স্বাথে বিস্তরিত বলা যাচ্ছে না।উল্লেখ্য, গত রোববার গভীর রাতে উপজেলার জারুলিয়া গ্রামে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে গিয়ে নিজ সন্তানকে কুপিয়ে হত্যা করে লিটন মিয়া ও তার স্ত্রী মিলন বেগম।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.