সংবাদ শিরোনাম
দোয়ারাবাজারে কেন্দ্র ফি’র নামে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায়  » «   তাহিরপুরে বিদ্যালয়ের আয়-ব্যয়ের হিসাব দিতে প্রধান শিক্ষকের টালবাহানা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি ভাতা দেওয়ার নামে প্রতারণা, প্রতারককে জরিমানা  » «   মৌলভীবাজারের জুড়িতে ২ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ দুইজন গ্রেফতার  » «   দোয়ারাবাজারে বিদেশী মদের চালানসহ মাদক কারবারি আটক  » «   সুনামগঞ্জের তিন উপজেলার ১৫টি স্পটে চলছে সহশ্রাধিক অবৈধ ক্রাশার মেশিনের তান্ডব  » «   সুনামগঞ্জে পিতা ও কন্যার উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে অজ্ঞাত বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার  » «   নবীগঞ্জে যুদ্বাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ মিয়া আমাদের মধ্যে আর নেই! রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাপন  » «   জুড়ীতে ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ আটক ১  » «   ছাতকে আবুল হোসেনকে পরিকল্পিত হত্যা নাকি অন্য কারণ?প্রকৃত অপরাধীদের আড়াল করার অপচেষ্টা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বরখাস্ত   » «   তাহিরপুরে রাতের আঁধারে কৃষকের জমির ধান কেটে নিল প্রতিপক্ষের লাঠিয়াল বাহিনী   » «   ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে অ্যাম্বুলেন্স ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৭, আশংখাজনক ভাবে ৫জনকে সিলেট প্রেরন  » «  

শামীমকে যারা ‘জঙ্গি’ বানিয়েছে তাদের বিচার চান তাঁর মা

3সিলেটপোস্ট রিপোর্ট:জাগৃতি প্রকাশনীর স্বত্বাধিকারী ফয়সল আরেফিন দীপন হত্যার আসামি মইনুল হাসান শামীমের মা বলেছেন, যাঁরা তাঁর ছেলেকে ‘জঙ্গি’ বানিয়েছেন তিনি তাঁদের বিচার চান। ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগ মঙ্গলবার টঙ্গীর চেরাগ আলী মার্কেটের সামনে থেকে শামীমকে গ্রেপ্তার করে।শামীমের গ্রামের বাড়ি সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার মাধবপুর গ্রামে। তাঁর বাবা আবদুল কুদ্দুছ মারা গেছেন পাঁচ বছর আগে। চার ভাই, দুই বোনের মধ্যে শামীম ছোট। তিনি সিলেটের মদনমোহন কলেজে স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষে পড়াশোনা করতেন।বৃহস্পতিবার দুপুরে শামীমের বাড়িতে গিয়ে মা মোসাম্মাৎ সালেহা বেগমের সঙ্গে কথা হয়। চোখের পানি মুছতে মুছতে তিনি বলেন, ‘যে ছেলে ভয়ে রাতে ঘর থেকে একলা বাইর অইত না, এখন টিভিতে দেখছি সে মানুষ হত্যা করেছে। বড় সন্ত্রাসী অই গেছে। এইটা বিশ্বাস করতে পারতেছি না।’সালেহা বেগম বলেন, ‘আমার ছেলেরে যারা সন্ত্রাসী বানাইছে, জঙ্গি বানাইছে, আমি তারার বিচার চাই। আমার ছেলে অন্যায় করলে তার বিচার অইব। আর কোনো মায়ের ছেলেরে যেন এভাবে কেউ সন্ত্রাসী না বানাইতে পারে। পুলিশ যেন তাদের ধরে, আমি এইটাই চাই।’শামীমের বড় ভাই আবু জাফর জানান, ২০১০ সালে শামীমকে পড়াশোনার জন্য সিলেটে পাঠান তাঁরা। ওই বছরই শামীম বাড়িতে গিয়ে স্থানীয় গোবিন্দগঞ্জ বাজারে প্রচারপত্র বিলি করতে গিয়ে গ্রেপ্তার হন। পরে তাঁরা জানতে পারেন শামীম হিযবুত তাহ্‌রীরের সদস্য। জেল থেকে জামিনে বের করে আনার পর তাঁরা তাঁকে ওই পথ থেকে ফিরিয়ে আনতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করেন। শামীম একপর্যায়ে এইচএসসি পাস করলে ধারণা করেছিলেন, শামীম এসব ছেড়ে দিয়েছেন।সালেহা বেগম জানান, গত রোজা শুরুর দুদিন আগে শামীম সিলেট থেকে বাড়িতে যান। সপ্তাহ খানেক পর বাড়ির কাউকে কিছু না বলে আবার চলে যান। ঈদে বাড়িতে যাননি। আর যোগাযোগ হয়নি পরিবারের সঙ্গে। সর্বশেষ বুধবার জানতে পারেন শামীম টঙ্গিতে গ্রেপ্তার হয়েছেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.