সংবাদ শিরোনাম
দোয়ারাবাজারে কেন্দ্র ফি’র নামে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায়  » «   তাহিরপুরে বিদ্যালয়ের আয়-ব্যয়ের হিসাব দিতে প্রধান শিক্ষকের টালবাহানা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি ভাতা দেওয়ার নামে প্রতারণা, প্রতারককে জরিমানা  » «   মৌলভীবাজারের জুড়িতে ২ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ দুইজন গ্রেফতার  » «   দোয়ারাবাজারে বিদেশী মদের চালানসহ মাদক কারবারি আটক  » «   সুনামগঞ্জের তিন উপজেলার ১৫টি স্পটে চলছে সহশ্রাধিক অবৈধ ক্রাশার মেশিনের তান্ডব  » «   সুনামগঞ্জে পিতা ও কন্যার উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে অজ্ঞাত বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার  » «   নবীগঞ্জে যুদ্বাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ মিয়া আমাদের মধ্যে আর নেই! রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাপন  » «   জুড়ীতে ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ আটক ১  » «   ছাতকে আবুল হোসেনকে পরিকল্পিত হত্যা নাকি অন্য কারণ?প্রকৃত অপরাধীদের আড়াল করার অপচেষ্টা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বরখাস্ত   » «   তাহিরপুরে রাতের আঁধারে কৃষকের জমির ধান কেটে নিল প্রতিপক্ষের লাঠিয়াল বাহিনী   » «   ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে অ্যাম্বুলেন্স ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৭, আশংখাজনক ভাবে ৫জনকে সিলেট প্রেরন  » «  

‘বালিশ মাসুদ’ ছাত্রদল নয়, বাম করতেন: ফখরুল

সিলেটপোস্ট ডেস্ক ::বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর দাবি করেছেন, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পে আলোচিত ‘বালিশকাণ্ডে’ জড়িত প্রকৌশলী মাসুদুল আলম ছাত্রদল নয়, ছাত্রজীবনে বাম সংগঠনের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। তিনি বুয়েট নয়, খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (কুয়েট) পড়াশোনা করেছেন বলেও দাবি বিএনপি মহাসচিবের।

শনিবার সন্ধ্যায় গুলশানে চেয়ারপারসনের কার‌্যালয়ে স্থায়ী কমিটির বৈঠক শেষে সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল একথা বলেন।

এ সংক্রান্ত এক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘পরমাণু বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ওই ঘটনায় যিনি দায়িত্বে ছিলেন, তার কিছু পরিচয় আমরা পেয়েছি। এক সময় তিনি বুয়েটে ছাত্রদলের নির্বাচিত ভিপিও নাকি ছিলেন।’

প্রধানমন্ত্রী দেওয়া সেই বক্তব্যের সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী বলেছেন ওই ইঞ্জিনিয়ার ছাত্রদলের, সে বুয়েটের ভিপি ছিল। এটা সর্বৈব মিথ্যা কথা। একেবারে অসত্য কথা পার্লামেন্টে দাঁড়িয়ে বলেছেন। প্রকৃত পক্ষে ইঞ্জিনিয়ার মাসুদুল আলম কুয়েটের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ছাত্র ছিলেন। কুয়েটের এ কে ফজলুল হক হলে ২৬ নম্বর রুম থকতো। রোল নাম্বার ৯২১৩৫।

সে পাশ করে ২০০০ সালে। সে কোনো দিনই ছাত্রদলের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিল না। ছাত্রজীবনের সম্ভবত তিনি একটি বাম সংগঠনের সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন। এ বিষয়ে বিস্তারিত আমরা জানি না। বর্তমানে তিনি বঙ্গবন্ধু প্রকৌশলী পরিষদের সঙ্গে জড়িত।’

ছাত্রদলের চলমান কর্মসূচি নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে দলের এই মহাসচিব বলেন, আমরা তাদের সঙ্গে দীর্ঘ আলোচনা করে, আমাদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান এখন যারা বিক্ষোভ করছে তারাসহ সকলের সঙ্গে কথা বলে সর্বসম্মতভাবে দল থেকে সিদ্ধান্ত তাদের দেওয়া হয়েছে।

এখন এই আন্দোলন যুক্তিসংগত নয়। তাদের এটাও বলা হয়েছে যে তারা অন্যান্য সংগঠনের মধ্যে যেতে পারে। তাদের উচিৎ হবে এই বিষয়গুলো বিবেচনায় নিয়ে এই আন্দোলন বন্ধ করা। প্রয়োজনে তারা আবার কথা বলবে। তাদের আন্দোলন থেকে ফিরে আসা উচিৎ।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.