সংবাদ শিরোনাম
দোয়ারাবাজারে কেন্দ্র ফি’র নামে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায়  » «   তাহিরপুরে বিদ্যালয়ের আয়-ব্যয়ের হিসাব দিতে প্রধান শিক্ষকের টালবাহানা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি ভাতা দেওয়ার নামে প্রতারণা, প্রতারককে জরিমানা  » «   মৌলভীবাজারের জুড়িতে ২ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ দুইজন গ্রেফতার  » «   দোয়ারাবাজারে বিদেশী মদের চালানসহ মাদক কারবারি আটক  » «   সুনামগঞ্জের তিন উপজেলার ১৫টি স্পটে চলছে সহশ্রাধিক অবৈধ ক্রাশার মেশিনের তান্ডব  » «   সুনামগঞ্জে পিতা ও কন্যার উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে অজ্ঞাত বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার  » «   নবীগঞ্জে যুদ্বাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ মিয়া আমাদের মধ্যে আর নেই! রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাপন  » «   জুড়ীতে ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ আটক ১  » «   ছাতকে আবুল হোসেনকে পরিকল্পিত হত্যা নাকি অন্য কারণ?প্রকৃত অপরাধীদের আড়াল করার অপচেষ্টা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বরখাস্ত   » «   তাহিরপুরে রাতের আঁধারে কৃষকের জমির ধান কেটে নিল প্রতিপক্ষের লাঠিয়াল বাহিনী   » «   ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে অ্যাম্বুলেন্স ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৭, আশংখাজনক ভাবে ৫জনকে সিলেট প্রেরন  » «  

৯৯৯ ফোন”রাতের আধারে অবৈধভাবে সুনামগঞ্জে অন্যের জমিতে ঘর তৈরীর সরঞ্জাম জব্দ

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি::৯৯৯ ফোন ফোন করে রাতের আধারে অবৈধভাবে অন্যের জমি দখল করে ঘর তৈরীর সরঞ্জাম জব্দ করল পুলিশ। ঘটনাটি ঘটে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার গৌরারং ইউনিয়নের কুতুবপুর গ্রামের জাহানুর আলমের ক্রয়কৃত সম্পত্তিতে স্থানীয় প্রভাবশালী ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ফুল মিয়ার নেতৃত্বে অবৈধভাবে ঘর তৈরী করতে গেলে এ ঘটনাটি ঘটে। তবে সাবেক চেয়ারম্যান ফুল মিয়ার দাবী তাদের ক্রয়কৃত সম্পত্তিতে ঘর তৈরী করতে গেলে পুলিশ তাতে বাধা দেয় এবং ভোরে কিছু টিন জব্দ করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় কুতুবপুর গ্রামের জাহানুর আলম বাদি হয়ে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ফুল মিয়াসহ ৬ জনের নাম উল্লেখ করে সুনামগঞ্জ সদর মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ ও স্থানীয় সুত্র জানায়, গৌরারং ইউনিয়নের আচিনপুর মৌজায় ১৩১৯ খতিয়ানে ৩৩৬০ নং দাগে ১৩ শতক ২০ পয়েন্ট জায়গার খরিদা মালিক জাহানুর আলম গংরা। এই মালিকানা জায়গা সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ফুল মিয়া কম মূল্যে কিনতে জাহানুর আলমকে চাপ বহু বার চাপ দিয়েছেন। এতে জাহানুর রাজি না হওয়ায় গত শুক্রবার রাত ১১ টার দিকে সাবেক এই চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে স্থানীয় প্রভাবশালীদের সমন্বয়ে একটি সন্ত্রাসী বাহিনী রাতের আধারে ঘর তৈরী করে দখল করতে আসেন। এ সময় জায়গার মালিকরা তাতে বাধা দিলে দখলবাজরা ক্ষিপ্ত হয়ে তাদেরকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকেন এবং বাদীকে প্রাণনাশের হুমকি দেয়। নিরুপায় হয়ে ৯৯৯ ফোন দিলে পুলিশকে অবগত করলে সদর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে অবৈধভাবে ঘর তৈরীর সরঞ্জামসহ জব্দ করে থানায় নিয়ে আসেন। এ নিয়ে এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে বলে বাদী জানায়। অভিযুক্তদের মাঝে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ফুল মিয়া, রাজারগাও গ্রামের মৃত আব্দুল্লাহর পুত্র মিনারুল অচিন্তপুর গ্রামের মৃত বাঘাই মিয়ার পুত্র শহিদ মিয়া, মোহাম্মদপুর এলাকার সাজিদুর রহমানের পুত্র মিজানুর রহমান, কালীপুর গ্রামের মঈন উদ্দিনের পুত্র তাহাজ্জ্বুত আলী, তাহিরপুর উপজেলার বিন্নাকুলি গ্রামের মৃত গোলাম মোস্তফার পুত্র নেছার উদ্দিন প্রমুখ।
বাদী জাহানুর আলম জানান, আমার জায়গা স্থানীয় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যানসহ একটি সংঘবদ্ধ ভুমিখেকো কম মূল্যে কিনতে না পেরে নানানভাবে আমাকে হয়রানী করছে এবং রাতের আধারে আমার ক্রয়কৃত ভুমিতে অবৈধভাবে ঘর তৈরী করে দখলের পায়তারা করছে। আমি যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দিয়েছি তাদের বিরুদ্ধে থানায় ও আদালতে একাধিক জাল জালিয়াতির মামলা রয়েছে। এরা কুতুবপুর তথা গৌরারং এলাকার চিহ্নিত চাদাঁবাজ, ভুমিখেকোচক্রের সক্রিয় সদস্য। এদের বিরুদ্ধে স্থানীয় পুলিশও কার্যকর পদক্ষেপ নিতে ভয় পায়। আমি বাধ্য হয়ে ৯৯৯ ফোন দিয়ে সহযোগিতা চাইলে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে অবৈধভাবে ঘর তৈরীর সরঞ্জামাদি আটক করতে সক্ষম হয় পুলিশ। কিন্তু এখন পর্যন্ত ভুমিখেকোদের বিরুদ্ধে কার্যক্রম কোন আইনী পদক্ষেপ গ্রহন না করায় চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি।
এ দিকে অভিযুক্ত সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ও বিএনপি নেতা ফুল মিয়া সকল অভিযোগ অস্বীকার করে জানান, জাহানুর আলম যে জায়গা ক্রয় করেছে তাতে তার মাত্র .৯৭ পয়েন্ট জায়গা ঠিকে। আমরা তার জায়গায় কোন ঘর তৈরী করছি না। আমরা ৭ জনে সাড়ে ১৬ শতক জায়গা ক্রয় করে ড্রেজার দিয়ে মাঠি ভরাট করে ঘর তৈরী করছি। আমার এক ছেলের নামে ৪শতক জায়গার যাবতীয় বৈধ কাগজপত্র রয়েছে।
এ ব্যাপারে সুনামগঞ্জ সদর মডেল থানার ওসি ইখতিয়ার চৌধুরী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ৯৯৯ ফোন দেয়ার ভিত্তিতে আমার থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে রাতের আধারে অবৈধভাবে ঘর নির্মানের সরঞ্জামাদি আটক করা হয়েছে এবং ঘটনার সাথে যে বা যারা জড়িত তাদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করার প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে।
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.