সংবাদ শিরোনাম
সুনামগঞ্জে পিতা ও কন্যার উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে অজ্ঞাত বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার  » «   নবীগঞ্জে যুদ্বাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ মিয়া আমাদের মধ্যে আর নেই! রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাপন  » «   জুড়ীতে ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ আটক ১  » «   ছাতকে আবুল হোসেনকে পরিকল্পিত হত্যা নাকি অন্য কারণ?প্রকৃত অপরাধীদের আড়াল করার অপচেষ্টা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বরখাস্ত   » «   তাহিরপুরে রাতের আঁধারে কৃষকের জমির ধান কেটে নিল প্রতিপক্ষের লাঠিয়াল বাহিনী   » «   ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে অ্যাম্বুলেন্স ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৭, আশংখাজনক ভাবে ৫জনকে সিলেট প্রেরন  » «   দিরাইয়ে আওয়ামীলীগের সম্মেলনে হামলার ঘটনায় ৭৭ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা  » «   এ সরকারকে বলে দিতে চাই আর কোনো হুমকি ধামকিতে কাজ হবে না-মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর  » «   সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে আওয়ামীলীগের ত্রি- বার্ষিক সম্মেলনে সংঘর্ষ ও নিহতের মামলায় গ্রেপ্তার ৪  » «   জৈন্তাপুরে দুটি মোটর সাইকেলের মধ্যে মুখামুখি সংঘর্ষে দুই বন্ধু’র মৃত্যু  » «   নবীগঞ্জে সন্ধা রাতে জোড়া হাতি নিয়ে চাঁদাবাজি!  » «   নবীগঞ্জ ফজরের নামাজ পড়ে এসে গলাকাটা স্ত্রীর লাশ বিছানায় দেখে অবাক!  » «  

ব্যারিস্টার পত্নী খুনের ঘটনায় – সন্দেহের তীর ভাগনের দিকে!

kunসিলেটপোস্টরিপোর্ট:২৪ ঘণ্টা পার হলেও ব্যারিস্টার পত্নী লিমা আক্তারের (৩৯) খুনের রহস্য বের করতে পারেনি পুলিশ। এর মধ্যে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হলেও কোনো কিছু বের করা সম্ভব হয়নি। তবে পুরো বিষয়টি পুলিশ বিশ্লেষণ করে বেশ কয়েকটি ক্লু ধরে আগাতে চাইছে।ব্যারিস্টার রকিবুল ইসলাম ছবি মাত্র চার মাস আগে লিমাকে বিয়ে করে নিকুঞ্জতে বসবাস করছিল। রফিকুল ইসলামের আগের ঘরের দুই সন্তান রয়েছে এবং তারা সবাই আমেরিকায় থাকেন। দেশে-বিদেশে ব্যারিস্টারের অঢেল সম্পত্তি রয়েছে।বাংলাদেশের সমুদয় সম্পত্তি মূলত দেখাশুনা করে ব্যারিস্টার ছবির ভাগনে ও একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ফয়সাল কাদের। পুলিশ তাকেও সন্দেহের বাইরে রাখছে না।নিহত লিমার পরিবারের সদস্যরা এই খুনের জন্য ফয়সালকে সন্দেহ করছে। নিহত লিমা আক্তারের ভাগনে মো. রাজিব বলেন, আমার খালু ব্যারিস্টার রকিবুল ইসলাম ছবি দীর্ঘদিন ধরে আমেরিকায় ছিলেন। সেখানে তার অনেক সম্পত্তি রয়েছে। বাংলাদেশেও তার অনেক সম্পত্তি রয়েছে। আমার খালু আগে একটি বিয়ে করেছিলেন । ওই স্ত্রীকে অনেক আগে ডির্ভোস দিয়েছেন। ওই সংসারে আমার খালুর একটি ছেলে ও একটি মেয়ে রয়েছে।গত চার মাস আগে আমার খালা লিমা আক্তারের সঙ্গে ব্যারিস্টার ছবির বিয়ে হয়। আমরা ওই বাসায় তেমন যাওয়া আসা করতাম না।  মাঝে মধ্যে ফোনে কথা হতো খালার সঙ্গে। খালুর বাংলাদেশের সকল সম্পত্তি দেখাশুনা করতো খালুর ভাগনে ফয়সাল কাদের। তিনি একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা করেন। আমাদের ধারনা সম্পত্তির লোভে ফয়সাল কাদের আমার খালাকে হত্যা করে থাকতে পারে। আমার খালাও আইনজীবী ছিলেন। তিনি আগে কোন বিবাহ করেননি। এক ভাই চার বোনের মধ্যে তিনি ছিলেন সবার বড়। নিহতের গ্রামের বাড়ি বরিশালে।এদিকে ঘটনার পর নিহতের স্বামী ব্যারিস্টার রকিবুল ইসলাম ছবি বাদী হয়ে খিলক্ষেত থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে তার বাসার সহকারী লেলিন নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে।এদিকে গতকাল দুপুরে ময়না তদন্ত শেষে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে থেকে নিহতে লিমা আক্তারের লাশ গ্রহন করেছে নিহতের স্বামী।জানতে চাইলে খিলক্ষেত থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম  বলেন, ঘটনার পরপরই নিহতের স্বামী ব্যারিস্টার রকিবুল ইসলাম ছবি বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন। এতে আসামি করা হয়েছে বাড়ির গাড়ি চালক নূর আলম ও তাঁর সহযোগী লেলিনকে। পুলিশ লেলিনকে গ্রেপ্তার করেছে। নূর আলম পলাতক।ব্যারিস্টার ছবির ভাগনে ফয়সাল কাদেরের বিরুদ্ধে অভিযোগের বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে থানার ওসি বলেন, তাকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। তিনিও আমাদের সন্দেহের বাইরে নন। তার মাধ্যমেই গাড়ি চালক নূর আলম ও লেলিন ওই বাসায় ঢুকেছিলে।ওসি পাল্টা প্রশ্ন করে বলেন, যদি ফয়সাল সম্পত্তির লোভে তার মামাকে খুন করত তাহলে সে ওই সম্পত্তি পেতো।  মামীকে খুন করে তার কী লাভ ? মামা যদি আবার বিয়ে করে তাহলে তো সেই ঘরের ছেলে-মেয়েরা সম্পত্তি নিয়ে যাবে। তবে কোনো কিছুই আমরা বাদ দিচ্ছি না। সব কিছুই আমরা খতিয়ে দেখছি।মঙ্গলবার রাতে রাজধানীর খিলক্ষেত থানার নিকুঞ্জ-১ এর ২৪ নম্বর বাড়ির চতুর্থ তলার বাড়ির নিচ তলা থেকে লিমা আক্তারের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ওই দিন সকালে নিহতের স্বামী ব্যারিস্টার রকিবুল ইসলাম ছবি তার স্ত্রীকে বাসায় রেখে বাইরে যায়।বাসায় ফিরেন বিকাল পাঁচটার সময় এসে দেখতে পান তার স্ত্রী লিমা আক্তার রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন। পরে তিনি সঙ্গে সঙ্গে পুলিশকে সংবাদ দেন। রাত আটটার সময় পুলিশ এসে তার রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার করেন। খিলক্ষেত থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) তপছির উদ্দিন আহমেদ নিহতের লাশের সুরতহালের প্রতিবেদন তৈরি করেন। এতে তিনি মাথায় ধারালো অস্ত্রের আঘাতে মারা গেছেন বলে জানান।এদিকে গতকাল বুধবার দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে নিহত লিমা আক্তারের লাশ গ্রহণ করেছেন তার স্বামী ব্যারিস্টার রকিবুল ইসলাম ছবি। এ সময়ে তিনি সাংবাদিকদের সঙ্গে এ ব্যাপারে কোন কথা বলেননি। পরে তার সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলেও তিনি তার ফোনটি রিসিভ করেননি।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.