সংবাদ শিরোনাম
সিলেটের ওসমানীনগরে মা-মেয়েকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ  » «   জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির অযৌক্তিক সিদ্বান্ত-বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল  » «   দেশের সংকট নিরসনের জন্য আওয়ামীলীগকে বিতাড়িত করার বিকল্প নেই :খন্দকার মুক্তাদির  » «   চুনারুঘাটে ছেলের হাতে মা খুন,ছেলে আটক  » «   জৈন্তাপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২  » «   দোয়ারাবাজারে ভারতীয় মালামালসহ আটক ২   » «   ওসমানীনগর থানার ওসি অথর্ব ও দুর্নীতিবাজ-মোকাব্বির খান এমপি  » «   ভোলায় পুলিশী ন্যাক্কারজনক ঘটনায় সিলেটে যুবদলের বিক্ষোভ মিছিল  » «   সিলেটে ঘুষ ছাড়া সহজে কারো পাসপোর্ট হয়না: ব্যবস্থা নিতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর চিঠি  » «   সুনামগঞ্জে জেলা বিএনপির বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের বাধা  » «   জামালগঞ্জে জামায়াতের আমীর দেশীয় আগ্নেয়াস্ত্র জিহাদি বইসহ ২জন আটক-মামলা  » «   সুনামগঞ্জের বিশ্বম্ভরপুরে পুকুরে ডুবে দুই বোনের মৃত্যু  » «   জৈন্তাপুর সীমান্তের ডিবির হাওর এলাকায় ৪৮ বিজিবি’র মেডিক্যাল ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত  » «   ওসমানীনগরে সাংবাদিকের বাড়িতে কর্মরত যুবকের লাশ ডোবা থেকে উদ্ধার  » «   দোয়ারাবাজারে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু  » «  

বঙ্গোপসাগরের ওপর মিয়ানমারের দাবি প্রতিষ্ঠার চেষ্টা

1সিলেটপোস্ট রিপোর্ট :বঙ্গোপসাগরে আইনগতভাবে বাংলাদেশের আওতাধীন বিস্তীর্ণ একটি অঞ্চলের ওপর দাবি প্রতিষ্ঠার চেষ্টা করছে মিয়ানমার। বাংলাদেশ এর প্রতিবাদ জানিয়েছে ,এ ব্যাপারে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা বলেন, মিয়ানমার বঙ্গোপসাগরের মহিসোপানের (কন্টিনেন্টাল শেলফ) একটি অংশ দাবি করে গত জুলাইয়ে জাতিসংঘের অধীন কমিশন অন দ্যা লিমিটস অফ দ্যা কন্টিনেন্টাল শেলফের (সিএলসিএস) কাছে আবেদন করে। এতে বাংলাদেশের এবং ভারতের আইনগতভাবে প্রাপ্য মহিসোপানও দাবি করা হয়। এ প্রেক্ষাপটে সিএলসিএস যেন মিয়ানমারের দাবি প্রত্যাখ্যান করে সেজন্য একটি চিঠি দেয়া হয়েছে।বাংলাদেশের দেয়া চিঠিতে বলা হয়েছে, মিয়ানমার তার সংশোধিত প্রস্তাবে বঙ্গোপসাগরের যে মহিসোপান দাবি করেছে তার মধ্যে ইতোপূর্বে ইটলস ও সালিসি আদালত কর্তৃক বাংলাদেশকে দেয়া অংশও রয়েছে। মিয়ানমারের দাবি ইটলস ও সালিসি আদালতের রায়ের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়। তাই সিএলসিএস যেন মায়ানমারের দাবি প্রত্যাখ্যান করে। তা না হলে বাংলাদেশের স্বার্থ ক্ষুণ্ণ হবে।বাংলাদেশ ২০১১ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি সিএলসিএসে সমুদ্রসীমার দাবি উত্থাপন করেছে। ২১ সদস্যের জুরি বোর্ড এ দাবির নিষ্পত্তি করবে। এর আগে বাংলাদেশের আপত্তির মুখে সিএলসিএস সমুদ্রসীমা নিয়ে ভারত ও মিয়ানমারের দাবি বিবেচনা স্থগিত রাখে।২০০৮ সালে মিয়ানমার প্রথমবারের মতো বঙ্গোপসাগরের মহিসোপান দাবি করে সিএলসিএসে চিঠি দেয়। এরপর গত জুলাইয়ে মিয়ানমার আবার সংশোধিত দাবি পেশ করে একটি চিঠি দিয়েছে। মিয়ানমারের দেয়া দুটি দাবিরই প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ।এদিকে বাংলাদেশ জার্মানির হামবুর্গে সমুদ্র আইন সংক্রান্ত আন্তর্জাতিক ট্রাইব্যুনালে (ইটলস) মিয়ানমারের সাথে সুমদ্রসীমা বিরোধ নিষ্পত্তির জন্য ২০০৯ সালে মামলা করে। একই বছর নেদারল্যান্ডসের হেগের স্থায়ী সালিসি আদালতে ভারতের সাথে সুমদ্রসীমা বিরোধ নিষ্পত্তির জন্য মামলা করে। ২০১২ সালে ইটলস ও ২০১৪ সালে সালিসি আদালতের রায়ে মিয়ানমার ও ভারতের সাথে বাংলাদেশের সমুদ্রসীমার বিরোধ নিষ্পত্তি হয়।২০১২ সালের ৭ জুলাই ভারতের সাথে সমুদ্রসীমা নিয়ে সালিসি আদালতের রায়ে বাংলাদেশ ১৯ হাজার ৪৬৭ বর্গ কিলোমিটার সমুদ্র অঞ্চল পেয়েছে। ভারতের সাথে বিরোধপূর্ণ সমুদ্রাঞ্চল ছিল ২৫ হাজার ৬০২ কিলোমিটার। ২০১২ সালে ১৪ মার্চ সমুদ্র আইন বিষয়ক আন্তর্জাতিক ট্রাইব্যুনালে (ইটলস) মিয়ানমারের সাথে সমুদ্রসীমা নিষ্পত্তি হওয়ার পর এ রায়ের ফলে বঙ্গোসাগরের এক লাখ ১৮ হাজার ৮১৩ বর্গ কিলোমিটার অঞ্চলের ওপর বাংলাদেশের সার্বভৌমত্ব প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এর মধ্যে ১২ নটিকাল মাইল পর্যন্ত আঞ্চলিক সমুদ্র (টেরিটোরিয়াল সি), ২০০ নটিক্যাল মাইল পর্যন্ত একান্ত অর্থনৈতিক অঞ্চল (ইইজেড) এবং চট্টগ্রাম উপকূল থেকে ৩৫৮ নটিক্যাল মাইল পর্যন্ত মহিসোপানে অবস্থিত সকল ধরনের প্রাণিজ ও অপ্রাণিজ সম্পদের উপর বাংলাদেশের অধিকার প্রতিষ্ঠা হয়েছে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.