সংবাদ শিরোনাম
দোয়ারাবাজারে কেন্দ্র ফি’র নামে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায়  » «   তাহিরপুরে বিদ্যালয়ের আয়-ব্যয়ের হিসাব দিতে প্রধান শিক্ষকের টালবাহানা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি ভাতা দেওয়ার নামে প্রতারণা, প্রতারককে জরিমানা  » «   মৌলভীবাজারের জুড়িতে ২ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ দুইজন গ্রেফতার  » «   দোয়ারাবাজারে বিদেশী মদের চালানসহ মাদক কারবারি আটক  » «   সুনামগঞ্জের তিন উপজেলার ১৫টি স্পটে চলছে সহশ্রাধিক অবৈধ ক্রাশার মেশিনের তান্ডব  » «   সুনামগঞ্জে পিতা ও কন্যার উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে অজ্ঞাত বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার  » «   নবীগঞ্জে যুদ্বাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ মিয়া আমাদের মধ্যে আর নেই! রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাপন  » «   জুড়ীতে ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ আটক ১  » «   ছাতকে আবুল হোসেনকে পরিকল্পিত হত্যা নাকি অন্য কারণ?প্রকৃত অপরাধীদের আড়াল করার অপচেষ্টা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বরখাস্ত   » «   তাহিরপুরে রাতের আঁধারে কৃষকের জমির ধান কেটে নিল প্রতিপক্ষের লাঠিয়াল বাহিনী   » «   ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে অ্যাম্বুলেন্স ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৭, আশংখাজনক ভাবে ৫জনকে সিলেট প্রেরন  » «  

কান্না থামেনি মায়ের : সাত বছরেও ফিরেনি মিন্টু

8নিজস্ব প্রতিবেদক : সাত বছরেও কান্না শেষ হয়নি দু:খিনী মায়ের। সেই যে ছেলে ঘর থেকে বেরিয়ে গেলো আর ফিরে এলো না বুকের ধন। প্রতিদিনই দরজার কড়া নাড়ার শব্দে মা’র মন আনচান করে উঠে। এই বুঝি ফিরলো খোকা! কিন্তু না সেই যে গেলো আর ফিরে আসার নাম নেই। ছেলে আসবে এমন প্রত্যাশায় মায়ের প্রহর গুনা শুধুই দীর্ঘায়িত হচ্ছে। ২০০৮ সালের ১৫ জুলাই নগরীর শাহী ঈদগাহ, হাজারীবাগের বাসা থেকে বের হয়ে যায় ইদ্রিস আলী ও পিয়ারা বেগমের কৈশোর পেরোনো ছেলে মো. নাজমুল ‍হুদা মিন্টু। তারপর আত্মীয় স্বজন পরিচিতজনদের বাড়ি বাড়ি খোঁজ করেও তার সন্ধান না পেয়ে কোতোয়ালি থানায় ১৩ আগস্ট একটি সাধারণ ডায়রি (নং-৮৯৫) মা পিয়ারা বেগম।

জিডিতে তিনি উল্লেখ করেন, ‘৫ ফুট ৬ ইঞ্চি উচ্চতার শ্যামলা বর্ণের মিন্টু বাসা থেকে বের হওয়ার পর থেকে নিখোঁজ রয়েছে। অনেক খোঁজাখুজি করেও তার সন্ধান পাওয়া যায়নি।’

জানা গেছে, ছেলে হারিয়ে পাগলপ্রায় মা পিয়ারা বেগম দিনে দিনে অসুস্থ হয়ে পড়ছেন। ছেলে ফিরে আসবে এমন প্রত্যাশায় তিনি দিন কাটাচ্ছেন। যাকেই পাচ্ছেন মিন্টুর নিখোঁজ হওয়ার কথা জানাচ্ছেন। তার খোঁজ পেলে মা যে কস্টে দিন কাটাচ্ছেন তা জানাতে অনুরোধ করছেন।

এ ব্যাপারে নিখোঁজ মিন্টুর বড় বোন নাজনিন বলেন, আমরা প্রতিদিনই খোঁজ করছি কবে মিন্টু ফিরে আসবে। প্রতিদিন তার অপেক্ষায় দিন কাটাচ্ছেন মা।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.