সংবাদ শিরোনাম
এডিশন্যাল ডি আই জি কে জেলা শ্রমিক ঐক্য পরিষদের বিদায় সংবর্ধনা ও ক্রেষ্ট প্রদান  » «   আউশকান্দি কলেজিয়েট স্কুলে বখাটেদের উৎপাত বেড়ে গেছে!ছাত্রী ও অভিভাবকরা আতংকিত  » «   সুনামগঞ্জ জেলা ও দিরাই উপজেলা শিক্ষা অফিসারের বিরুদ্ধে দুদকে ঘুষ-দূর্নীতি ও অর্থ কেলেংকারীর অভিযোগ   » «   মাস খানেক পরই বিদ্যুৎ ঘাটতিসহ সবকিছুই ঠিক হয়ে যাবে-পরিকল্পনা মন্ত্রী মান্নান  » «   ওসমানীনগরে পরিমাপে পেট্রোল কম দেয়ায় সুপ্রীম ও আবীর ফিলিং স্টেশনকে জরিমানা  » «   জগন্নাথপুরে এক কৃষক হত্যা মামলায় ১ জনের আমৃত্যু ও ৫ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড  » «   সিলেটের ওসমানীনগরে মা-মেয়েকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ  » «   জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির অযৌক্তিক সিদ্বান্ত-বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল  » «   দেশের সংকট নিরসনের জন্য আওয়ামীলীগকে বিতাড়িত করার বিকল্প নেই :খন্দকার মুক্তাদির  » «   চুনারুঘাটে ছেলের হাতে মা খুন,ছেলে আটক  » «   জৈন্তাপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২  » «   দোয়ারাবাজারে ভারতীয় মালামালসহ আটক ২   » «   ওসমানীনগর থানার ওসি অথর্ব ও দুর্নীতিবাজ-মোকাব্বির খান এমপি  » «   ভোলায় পুলিশী ন্যাক্কারজনক ঘটনায় সিলেটে যুবদলের বিক্ষোভ মিছিল  » «   সিলেটে ঘুষ ছাড়া সহজে কারো পাসপোর্ট হয়না: ব্যবস্থা নিতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর চিঠি  » «  

নগদ লেনদেন ১০ লাখ হলেই রিপোর্ট দিতে হবে

46সিলেট পোস্ট রিপোর্ট : সন্ত্রাসে অর্থায়ন ও মানিলন্ডারিং প্রতিরোধে নিবির পর্যবেক্ষণের সুবিধার্থে একটি নির্দিষ্ট হিসাবে এক দিনে এক বা একাধিক লেনদেনের মাধ্যমে জমা বা উত্তোলনের পরিমান ১০ লাখ টাকা বা তার বেশি হলেই বাংলাদেশ ফিনেন্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিট (বিএফআইইউ) এর কাছে লেনদেনের এ রিপোর্ট জমা দেয়ার নির্দেশ প্রদান করেছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। মঙ্গলবার বাংলাদেশ ব্যাংকের বিএফআইইউ এর জারিকৃত এক সার্কুলারে দেশে কার্যরত সকল আর্থিক প্রতিষ্ঠনকে এ নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।  আগামী ১ জুন থেকে এ নির্দেশনা কার্যকর করা হবে এবং আগামী জুলাই মাস থেকেই রিপোর্ট প্রদান করতে হবে।

 

নির্দেশনায় বলা হয়েছে- ১০ লক্ষ টাকা বা তার বেশি একটি হিসেব থেকে লেনদেন হলে তার রিপোর্ট সংশ্লিষ্ট আর্থিক প্রতিষ্ঠান স্ব-স্ব কেন্দ্রীয় পরিপালন ইউনিটের মাধ্যমে বিএফআইইউ বরাবর নগদ লেনদেন রিপোর্ট হিসেবে দাখিল করবে। এরূপ বিবরণী মাসিক ভিত্তিতে প্রদান করতে হবে। সেক্ষেত্রে প্রতিমাসে নগদ লেনদেন রিপোর্ট পরবর্তী মাসের ২১ তারিখের ওয়েবর মাধ্যমে বিএফআইইউ এর নিকট দাখিল করতে হবে। সংশ্লিষ্ট মাসে রিপোর্টযোগ্য নগদ লেনদেন সংগঠিত না হলে- ‘নগদ লেনদেন রিপোর্টযোগ্য কোন লেনদেন নেই’ মর্মে প্রত্যয়ন পত্রের মাধ্যমে জানাতে হবে। দাখিলকৃত এসব রিপোর্ট সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানকে রিপোর্ট জমা দেয়ার পরবর্তী ৫ বছর পর্যন্ত সংরক্ষণ করতে হবে।

 

তবে সরকারী হিসাব, সরকারী মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান, আধাসরকারী বা শায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠান হিসাবে নগদ জমার ক্ষেত্রে নগদ লেনদেন রিপোর্ট জমা দিয়ে না হলেও উত্তোলনের ক্ষেত্রে তা যথানিয়মে দাখিল করতে হবে। নগদ লেনদেন রিপোর্টিং পূর্বে প্রবর্তিত সন্দেহজনক লেনদেন রিপোর্টি থেকে আলাদা বলে জানিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এতে বলা হয়েছে, কোন হিসেবে নগদ লেনদেন রিপোর্টযোগ্য সকল লেনদেন সম্পাদিত হলেই তা সন্দেহজনক লেনদেন হিসেবে বিবেচিত হবে না। তবে কেন্দ্রীয় পরিপালন ইউনিট সকল লেনদেন পর্যালোচনা করে দরকার হলে সন্দেহজনক লেনদেন রিপোর্ট হিসেবে পৃথক রিপোর্ট জমা দিতে হবে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.