সংবাদ শিরোনাম
দোয়ারাবাজারে কেন্দ্র ফি’র নামে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায়  » «   তাহিরপুরে বিদ্যালয়ের আয়-ব্যয়ের হিসাব দিতে প্রধান শিক্ষকের টালবাহানা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি ভাতা দেওয়ার নামে প্রতারণা, প্রতারককে জরিমানা  » «   মৌলভীবাজারের জুড়িতে ২ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ দুইজন গ্রেফতার  » «   দোয়ারাবাজারে বিদেশী মদের চালানসহ মাদক কারবারি আটক  » «   সুনামগঞ্জের তিন উপজেলার ১৫টি স্পটে চলছে সহশ্রাধিক অবৈধ ক্রাশার মেশিনের তান্ডব  » «   সুনামগঞ্জে পিতা ও কন্যার উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারে অজ্ঞাত বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার  » «   নবীগঞ্জে যুদ্বাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ মিয়া আমাদের মধ্যে আর নেই! রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাপন  » «   জুড়ীতে ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ আটক ১  » «   ছাতকে আবুল হোসেনকে পরিকল্পিত হত্যা নাকি অন্য কারণ?প্রকৃত অপরাধীদের আড়াল করার অপচেষ্টা   » «   দোয়ারাবাজারে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বরখাস্ত   » «   তাহিরপুরে রাতের আঁধারে কৃষকের জমির ধান কেটে নিল প্রতিপক্ষের লাঠিয়াল বাহিনী   » «   ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে অ্যাম্বুলেন্স ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৭, আশংখাজনক ভাবে ৫জনকে সিলেট প্রেরন  » «  

পৌর মেয়র পাপলুর বিরুদ্ধে নানা অনিয়মের অভিযোগ

klসিলেটপোস্টরিপোর্ট:সিলেটের গোলাপগঞ্জ পৌরসভার মেয়র জাকারিয়া আহমদ পাপলুর বিরুদ্ধে নানা অনিয়মের অভিযোগ করেছে ‘আমরা গোলাপগঞ্জবাসীর’ নেতৃবৃন্দ। সোমবার বিকালে সিলেট জেলা প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করা হয়।সংবাদ সম্মেলনে পৌর এলাকার নাগরিক এম আব্দুল জলিল লিখিত বক্তব্যে বলেন, বাংলাদেশের উপজেলা পর্যায়ের প্রথম সারির জনপদ হচ্ছে গোলাপগঞ্জ উপজেলা। আর এ উপজেলার প্রাণকেন্দ্র হচ্ছে গোলাপগঞ্জ পৌরসভা। অনেক আশা নিয়ে গোলাপগঞ্জের মানুষ জাকারিয়া আহমদ পাপলুর মত একজন তরুনকে জনপ্রতিনিধি হিসেবে নির্বাচিত করা হয়েছিল। কিন্তু জনপ্রতিনিধি নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে তিনি বিভিন্ন অনিয়ম করে যাচ্ছে। মেয়রের ঐসব অন্যায়, অপকর্মের বিরুদ্ধে কেউ প্রতিবাদ করলে তাকে মামলা দিয়ে হয়রানী করা হয়।সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, গোলাপগঞ্জ পৌরবাসীকে জিম্মী করে উপজেলা পর্যায়ের দেশের ‘ক’ শ্রেণীর যেকোন পৌরসভার চেয়ে ৮/১০ গুন বেশী হারে বাসা-বাড়ী ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিকদের উপর থেকে আদায় করছেন মেয়র। এক্ষেত্রে দালালদের উৎপাত মানুষকে আরো অতিষ্ট করে তুলেছে। দালালরা মেয়রের কাছের লোক হওয়ায়  সাহস থাকার পরও অনেকেই প্রতিবাদ করতে পারেননা। অনেক সময় দেখা গেছে  বিল্ডিং বা ইমারত নির্মাণ নকশা অনুমোদনের কয়েক বছর আগের দিন তারিখ উল্লেখ করে হোল্ডিং  ট্যাক্স  এর চিঠি প্রেরন করা হয়। হোল্ডিং ট্যাক্স আদায়ের অজুহাতে অনেক বিল্ডিং এর গ্যাস সংযোগ প্রদানের পৌর ছাড়পত্র দেয়া হচ্ছে না। আবার অনেকের কাছ থেকে  টাকা পয়সা নিয়ে ছাড়পত্র  দেয়ার পর কোন কারন ছাড়াই তা বাতিল করা হচ্ছে।সংবাদ সম্মলনে মেয়র পাপলু যাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন তাদের নামও উলে­খ করা হয়েছে।এছাড়াও পৌরসভার হিসাব রক্ষক  জুবায়ের আহমদ চৌধুরী (সাহেদ),  সহঃ কর আদায়কারী আব্দুল বাছিত, এমএলএসএস নজরুল ইসলাম, নৈশ্য প্রহরী  আনোয়ার হোসেনকে মেয়র পাপলু চাকরিচ্যুত করেছেন বলে সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়েছে।সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে এম. আব্দুল জলিল আরো বলেন, জনগনকে হয়রানী করে বিভিন্ন প্রকার ফাদেঁ ফেলে কোটি কোটি টাকার মালিক হয়েছেন পাপলু। কিভাবে এতো সম্পত্তির মালিক হয়েছেন তার প্রমান খুব শীঘ্রই “আমরা গোলাপগঞ্জবাসী” নামক এই সংগঠনটি সবার সামনে তথ্য প্রমানসহ তুলে ধরবে।সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিতি ছিলেন, গোলাপগঞ্জ বাজার বনিক সমিতির সভাপতি হাফিজুর রহমান চৌধুরী, পৌর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি সাদেক আহমদ, মুক্তিযোদ্ধা যুব কমান্ডের সহ সভাপতি ফজলুল আলম, সমাজসেবী দেলোয়ার হোসেন খান, গৌস উদ্দিন চৌধুরী, আমরা গোলাপগঞ্জবাসী সংগঠনের সেক্রেটারি সায়েম আহমদ চৌধুরী, আব্দুস সালাম শিপলু, শাহিন আহমদ ও ইউসুফ আলী প্রমুখ।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়াার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.